সমুদ্র বন্দরসমূহে ৩ নম্বর সতর্কতা সংকেত, উত্তাল সাগর

Feature Image

স্বাধীনবাংলা২৪.কম

ঢাকা: কখনো ভারী বৃষ্টি, সঙ্গে বজ্রপাত। কখনো আবার ঝিরিঝিরি বৃষ্টি। বৃষ্টি থেমে গেলে আবার প্রখর রোদ। মধ্যশরতেও বর্ষার আবহ প্রকৃতিতে রয়েছে। মৌসুমি বায়ুর তেজের কারণে প্রকৃতি এমন রয়েছে। এর সঙ্গে বঙ্গোপসাগরও উত্তাল রয়েছে কয়েক দিন ধরে। এ কারণে দেশের সমুদ্রবন্দরগুলোতে ৩ নম্বর ও নৌবন্দরগুলোকে ১ নম্বর সতর্কতাসংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে।

আবহাওয়া অধিদপ্তরের আজ মঙ্গলবার সকালের সতর্কবার্তায় বলা হয়েছে, উত্তর বঙ্গোপসাগর এলাকায় গভীর সঞ্চলনশীল মেঘমালা তৈরি হচ্ছে। উত্তর বঙ্গোপসাগর, উপকূলীয় এলাকা ও সমুদ্রবন্দরগুলোর ওপর দিয়ে ঝোড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। এ জন্য চট্টগ্রাম, মোংলা, পায়রা ও কক্সবাজার সমুদ্রবন্দরকে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্কসংকেত দেখিয়ে যেতে এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত নৌযানগুলোকে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত উপকূলের কাছাকাছি সাবধানে চলাচল করতে বলা হয়েছে।

আবহাওয়া অধিদপ্তরের আজ সকালের পূর্বাভাস থেকে জানা যায়, ঢাকা, খুলনা, চট্টগ্রাম বিভাগে বৃষ্টি বেশি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এর সঙ্গে বজ্রবৃষ্টিও হতে পারে।

ভারতীয় আবহাওয়া অধিদপ্তরও ২২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত পশ্চিমবঙ্গ, আসাম, মেঘালয় ও সিকিমে ভারী বৃষ্টির হতে পারে বলে জানিয়েছে।

এদিকে গতকাল সোমবার সকাল ছয়টা থেকে আজ সকাল ছয়টা পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি ৭১ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে কুতুবদিয়ায়। এ সময় রাজধানী ঢাকায় বৃষ্টি হয়েছে ২২ মিলিমিটার।

তবে বর্ষার বিদায়বেলা পুরো সেপ্টেম্বর মাসে বৃষ্টি হবে। গত ৩১ আগস্ট আবহাওয়া অধিদপ্তরের বিশেষজ্ঞ কমিটির বৈঠকে জানানো হয়, আগস্ট মাসে ৪৯৭ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছ, যা স্বাভাবিকের চেয়ে ৩১ দশমিক ৫ শতাংশ বেশি। সেপ্টেম্বর মাসে দেশজুড়ে স্বাভাবিক মাত্রায় বৃষ্টির সম্ভাবনা থাকলেও এর পরিমাণ হতে পারে ৩৩৫ মিলিমিটার।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »