অজগরের সিটি স্ক্যান

Feature Image

৮ ফুট লম্বা আহত একটি অজগরের সিটি স্ক্যান করা হলো ভুবনেশ্বরের এক বেসরকারি হাসপাতালে। স্নেক হেপ্ললাইন নামে একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের উদ্যোগে এই সিটি স্ক্যানটি করা হয়।

প্রথমিক রিপোর্টে জানা যায়, সাপটির শরীরের বেশ কয়েকটি জায়গায় চোট রয়েছে। কিন্তু, চোটের গুরুত্ব কতটা তা জানা যায়নি তখনও। তাই চিকিৎসা শুরু হওয়ার আগে প্রয়োজন ছিল একটি সিটি স্ক্যানের। অবশেষে অনেক চেষ্টার পর শহরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে সাপটির সিটি স্ক্যানের ব্যবস্থা করা সম্ভব হয়।

তবে, কীভাবে সেই স্ক্যান করা হবে তা ছিল ওই সংগঠনের কাছে একটি বড় চ্যালেঞ্জ। তাদের কাছে খবর ছিল বিদেশে একবারই অজগরকে বেহুঁশ করে চিকিৎসা করা হয়েছিল। কিন্তু ভারতে এই ধরনের ঘটনার কোন নজির নেই।

অবশেষে ঝুঁকি না নিয়ে সাপটির মাথা সিটি স্ক্যানের বোর্ডের সঙ্গে মেডিক্যাল টেপ দিয়ে আটকে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। ফলে স্ক্যানের সময় আর নড়তে পারেনি অজগরটি।

সিটি স্ক্যানের রিপোর্টে দেখা গেছে, সাপটির শরীরে বড় ধরনের আঘাতের চিহ্ন রয়েছে কয়েক জায়গায়। শুরু হয়েছে চিকিৎসা।

উল্লেখ্য, ৪ দিন আগে আহত অজগরটিকে উদ্ধার করা হয় ভুবনেশ্বর থেকে ১৩০ কিলোমিটার দূরে কেওনঝড় জেলার আনন্দপুর এলাকা থেকে।

আরো খবর »