গোঁফ রাখায় মারধর!

Feature Image

ভারতের গুজরাটের গাঁধীনগরের পাশে একটি গ্রামে দুটি পৃথক ঘটনায় রাজপুর সম্প্রদায়ের মানুষরা দুইজন দলিতকে মারধর করেছে বলে অভিযোগ। দলিতদের অপরাধ, গোঁফ রেখেছিলেন তারা।
এই ঘটনায় সোমবার একজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

গত মাসের ২৫ ও ২৯ তারিখে কলোল তালুকের লিম্বোদরা গ্রামে পৃথক দুইটি ঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত ব্যক্তির নাম ভরত সিংহ বাঘেলা। স্থানীয় আইনের ছাত্র কৃপাল মহেরিয়াকে তিনি মারধর করেছেন বলে অভিযোগ।

কৃপালের দাবি, রাস্তা দিয়ে যাওয়ার সময় বাঘেলা তাকে বলেন, শুধু গোঁফ রাখলেই কেউ রাজপুত হয়ে যায় না। তিনি গুরুত্ব না দেওয়ায় লাঠিপেটা করা হয় তাকে। প্রাথমিক চিকিৎসার পর কৃপালকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। বাঘেলাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

এই লিম্বোদরা গ্রামেই ২৫ তারিখ এমনই আর একটি ঘটনা ঘটে। অভিযোগ, পীযূষ পারমার নামে এক যুবককে মারধর করেছে রাজপুতরা।

পুলিশ জানিয়েছে, পীযূষের অভিযোগ, একটি অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে তিনি বাড়ি ফিরছিলেন। তখন গ্রামের কয়েকজন যুবক ঘিরে ধরে মারধর করেন তাকে। কারণ সেই এক, গোঁফ রেখেছিস যে!
তবে এই ঘটনায় এখনও কাউকে গ্রেফতার করা হয়নি।

 

সূত্র: এবিপি

আরো খবর »