আইনস্টাইনের সুখী হওয়ার গোপন রহস্য লেখা সেই চিরকুট নিলামে

Feature Image

আমাদের মাঝে এমন অনেকেই রয়েছেন যারা জীবনে সফল, কিন্তু সুখী নন। সুখের প্রকৃত সংজ্ঞা কী আর কী ভাবেই জীবনে সুখী হওয়া যায়, তা নিয়ে ৯৫ বছর আগে নিজের ভাবনা জানিয়েছিলেন অ্যালবার্ট আইনস্টাইন।

কোনও বিশাল আকারের থিওরিতে নিজের সেই কথা প্রকাশ করেননি তিনি, মাত্র দু’চার লাইনের একটি ছোট্ট নোটের মধ্যে দিয়েই ‘সুখ’ সম্পর্কে বলেছিলেন এই মহাবিজ্ঞানী। ডেইলি মেল-এ প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, সম্প্রতি আইনস্টাইনের সেই নোটটি জেরুজালেমে নিলামে উঠতে চলেছে।

ডেইলি মেল’র সেই প্রতিবেদন অনুযায়ী, জাপানের একটি লেকচার ট্যুরে গিয়ে ১৯২২ সালে তিনি সেই নোটটি লিখেছিলেন। টোকিও শহরের একটি কুরিয়ার সংস্থার পিওনকে হাতে লেখা চিরকুটটি দিয়েছিলেন নোবেলজয়ী এই বিজ্ঞানী।

শোনা যায়, টোকিওর ইম্পিরিয়াল হোটেলে বক্তৃতা দেওয়ার সময়ে জাপানি কুরিয়ার সংস্থাটি মহাবিজ্ঞানীর কাছে তার নোবেল জয়ের খবর পৌঁছে দেয়। সেই সময়ে ওই কুরিয়ার সংস্থার ডেলিভারি বয়কে খুশি হয়ে তিনি টিপস দিতে চেয়েছিলেন। কিন্তু কোনও টাকা নিতে চাননি সেই ব্যক্তি। তখন ছোট্ট একটি চিরকুটে নিজের হাতে দু’টি লাইন লিখে তাকে উপহার দেন আইনস্টাইন।

আবার শোনা যায় যে, টিপস দেওয়ার মতো খুচরো পয়সা কাছে না থাকায় ওই লাইন দু’টি লিখে দিয়েছিলেন তিনি।
তবে এই নিয়ে মত বিরোধ থাকলেও চিরকুটের লেখাটি যে ভীষণ দামি, তা স্বীকার করে নেন সকলেই।

সেই চিরকুটে লেখা ছিল, ‘‘একটি শান্ত এবং শালীন জীবনের মধ্যেই সুখের প্রকৃত চাবিকাঠি লুকিয়ে। সাফল্যের পেছনে ক্রমাগত ছুটলে কেবল অস্থিরতাই ধরা দেবে। ’’ অন্য একটি লাইনে লেখা ছিল, ‘‘যদি ইচ্ছে থাকে, তবে উপায় বের হবেই’’।

আরো খবর »