শাম্মূক গতিতে সংস্কারের কাজ

Feature Image

শাম্মূক গতিতে এগিয়ে চলছে আরিচা- দৌলতপুর-টাঙ্গাইল আঞ্চলিক মহাসড়কের সংস্কারের কাজ । জনসাধরন ও যাত্রীদের চরম দূর্ভোগ

মানিকগঞ্জ থেকে জালাল উদ্দিন ভিকুঃ  মানিকগঞ্জের দৌলতপুর উপজেলার একমাত্র আরিচা-দৌলতপুর-টাঙ্গাইল আঞ্চলিক মহাসড়কের দৌলতপুর উপজেলা অংশের ৭ কিলোমিটার সড়ক সম্পূর্ণ খানা খন্দলে ভরা যানবাহন চলাচল ও যাত্রীদের চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। এদিকে গত মে মাসে ঈদুল ফিতরের আগমুহুর্তে সড়ক ও জনপথ বিভাগ ৭ কোটি টাকা ব্যয়ে এই সড়কটি সংস্কার কাজ শুরু করেছে । শাম্মূক গতিতে এগিয়ে চলচ্ছে আরিচা-দৌলতপুর-টাঙ্গাইল আঞ্চলিক মহাসড়কের দৌলতপুর উপজেলা অংশের ৭ কিলোমিটার সড়কের সংস্কার কাজ ।

 

এই সড়কটি সংস্কারের কাজ পেয়েছেন মেসার্স তানভীর কনাক্টাকশন ।গত ঈদুল ফিতরের আগমুহুতে সড়কটির পুড়ান কার্পেটিং ভ্যাকু দিয়ে উঠিয়ে ফেললে সড়কটির কাজ শেষ না করে সড়কটি আরো বেহাল দশা করে ফেলে রাখায় এতে করে ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আযহা আগে ও পড়ে এই সড়ক দিয়ে চলাচল কারী মানিকগঞ্জের দৌলতপুর, টাঙ্গাইল,নাগরপুর,চৌহালী এলাকার লক্ষ লক্ষ জনসাধারন ও যাত্রীদের আরো দুর্ভোগ বেড়ে যায় । গতকয়েক মাস যাবৎ থেমে থেমে বৃষ্টির ফলে সড়কটির বিভিন্ন স্থানে খানাখন্দলগুলোতে পানি থৈ-থৈ করছে । বৃর্ষ্টির পর যানবাহনের চাকা আটকে য়াওয়ায় যাত্রীদের কাদা পানিতে নামিয়ে ধাক্কা দিয়ে যানবাহন উদ্ধার করতে দেখা যায় ।

একমাত্র টাঙ্গাইল থেকে নাগরপুর-মানিকগঞ্জের দৌলতপুর ও ঘিওর উপজেলার উপর দিয়ে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের সাথে সংযোগ সড়ক স্থাপন করেছে গুরুত্বপূর্ণ এই আরিচা-দৌলতপুর-টাঙ্গাইল আঞ্চলিক মহাসড়কটি। এই সড়কটি দিয়ে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের যানজট সৃস্টি হলে যমুনা সেতু পারাপারের উত্তরাঞ্চলের হানিফ,নাবিল,সোনি,ডিপজল,গোন্ডেন,সহ বিভিন্ন নৈশকোচ মানিকগঞ্জের আরিচা-দৌলতপুর-টাঙ্গাইল আঞ্চলিক মহাসড়কটি দিয়ে চলাচল করে । সেই সাথে ঘিওর, দৌলতপুর ও টাঙ্গাইলের নাগরপুর সহ সিরাজগঞ্জের চৌহালী উপজেলার লক্ষ লক্ষ মানুষ প্রতিনিয়ত বাস, লেগুনা, টেম্পু, সি.এন.জি, রিক্সা, অটোরিক্সা সহ ছোট-বড় যানবাহন যোগে চলাচল করে। এছাড়াও এসব এলাকার সরকারী ও বেসরকারী চাকুরীজিবীরা জেলা সদর, রাজধানী ঢাকা সহ দেশের বিভিন্ন স্থানে তাদের কর্মস্থলে নিজ বাড়ী থেকে এই রাস্তাটি দিয়েই যাতায়াত করে থাকে। কারন হলো সড়কটির বড় বড় খানাখন্দলের কবলে পড়ে যানবাহন বিকল হয়ে যাত্রীদেরকে পড়তে হচ্ছে প্রতিনিয়তই ভোগান্তিতে।

অপরদিকে, এই সড়কটিতে যে সব যাববাহন চলাচল করেছে সেই সব যানবাহনের মালিকেরা হচ্ছে ধারুন ভাবে ক্ষতিগ্রস্থ। এদিকে, রাস্তাটিতে অতিরিক্ত খানা খন্দল থাকার কারণে যানচালকদের ফুটপাত দখল করে গাড়ী চালানোর প্রবনতা বেড়েছে। কার আগে কে ফুটপাত দখল করে গাড়ী চালাতে পারবে সেই প্রবণতার কারনে প্রতিনিয়তই ঘটে চলেছে দূর্ঘটনা। আর এই দূর্ঘটনার কবলে পড়ে ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে নিরীহ সাধারন পথচারী সহ যাত্রীরা।

এবিষয়ে দৌলতপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার কানিজ ফাতেমা জানান-সড়ক ও জনপথের নির্বাহী প্রকৌশলী এর সাথে যোগাযোগ হয়েছে আরিচা-দৌলতপুর-টাঙ্গাইল আঞ্চলিক মহাসড়কটি যাতে দ্রæত সংস্কার কাজ শেষ করার জন্য । কিন্তু সড়কটিতে অতিরিক্ত খানা খন্দলের কারনে এসব চাকুরীজিবীরা অনেক সময়ই তাদের গন্তব্যে ঠিকমত পৌছতে পারে না।

মানিকগঞ্জের সড়ক ও জনপথের এস.ডি.ই আব্দুর রহিম জানান, অতি বৃর্ষ্টির কারনে কাজের গতি থেমে গেছে । আগামী এক মাসের মধ্যে আরিচা-দৌলতপুর-আরিচা আঞ্চলিক মহাসড়কের বানিয়াগোনা থেকে দৌলতপুর সীমানা পর্যন্ত মেরামতের কাজ শেষ করা হবে।

আরো খবর »