বোলিংয়ের শেষ পাঁচ ওভারই হারের কারণ

Feature Image

স্বাধীনবাংলা২৪.কম

ক্রীড়া ডেস্ক: দক্ষিণ আফ্রিকায় টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি- দুই সংস্করণে কোনো ম্যাচেই ন্যূনতম প্রতিদ্বন্দ্বিতা গড়তে পারেনি বাংলাদেশ। প্রথম টি-টোয়েন্টিতে অন্তত ভিন্ন চিত্র দেখা গেল। প্রোটিয়াদের চোখে চোখ রেখে লড়াই করল বাংলাদেশ। যদিও হারের বৃত্ত থেকে বের হতে পারল না সফরকারীরা। জয়ের আশা জাগিয়েও শেষ পর্যন্ত ২০ রানে হেরেছে বাংলাদেশ। বোলিংয়ের শেষ পাঁচ ওভারকেই হারের প্রধান কারণ বলছেন অধিনায়ক সাকিব আল হাসান।

প্রথম ১০ ওভারে দক্ষিণ আফ্রিকার রান ছিল ৯৭। পরের পাঁচ ওভারে স্বাগতিকরা তুলতে পারে মাত্র ৩৬। কিন্তু শেষ পাঁচ ওভারে ৬২ রান তুলেছে প্রোটিয়ারা। সাকিব মনে করেন, তারা ১৫-২০ রান বেশি দিয়ে ফেলেছেন। পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে সাকিব বলেন, ‘আমার মনে হয় দক্ষিণ আফ্রিকা দারুণ ব্যাটিং করেছে, বিশেষ করে শেষ পাঁচ ওভারে। ওই পাঁচ ওভারই আমাদের হারিয়ে দিয়েছে। সব মিলিয়ে আমরা ১৫-২০ রান বেশি দিয়েছি। তবে প্রথম ১০ ওভার আমরা দারুণ ব্যাটিং করেছি। কিন্তু সেটা আমরা ধরে রাখতে পারিনি। আমাদের ব্যাটিং ভালো ছিল, স্পিনাররাও দারুণ ছিল। কিন্তু কিছু বাজে ফিল্ডিং আমাদের ভুগিয়েছে।’

১৯৬ রানের বড় লক্ষ্য তাড়ায় একটা সময় পর্যন্ত সঠিক পথেই ছিল বাংলাদেশ। প্রথম ১০ ওভারে বাংলাদেশ ৩ উইকেট হারিয়ে তুলেছিল ৯৭ রান। কিন্তু এরপরই পথ হারায় বাংলাদেশ, শেষ ১০ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে তুলতে পারে মাত্র ৭৮। যেখানে দক্ষিণ আফ্রিকার ইনিংসে ডট বল মাত্র ২৩টি, সেখানে বাংলাদেশের ইনিংসে ডট বল ৪৪টি! এই জায়গাটায় উন্নতি করতে হবে বলে মনে করেন সাকিব, ‘প্রথম দশ ওভারে আমরা সঠিক পথেই ছিলাম। পরে তারা উইকেট নিয়েছে এবং চাপ বাড়িয়েছে। আরেকটি ম্যাচ বাকি আছে, কিছু জায়গায় উন্নতি করতে হবে। ডট বল নিয়ে কথা বললাম, যা আমাদের ভুগিয়েছে। আগ্রাসী এবং বুদ্ধিমান ব্যাটিংও করতে হবে।’

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »