রাজধানীতে বাসার ভেতর মা-ছেলের গলাকাটা লাশ

Feature Image

স্বাধীনবাংলা২৪.কম

ঢাকা: রাজধানীর কাকরাইলে একটি বাসা থেকে মা ও ছেলের গলাকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

বুধবার সন্ধ্যায় কাকরাইলের তমা সেন্টারের গলির কাছে ৭৯/১ বাড়ির পাঁচতলায় এ ঘটনা ঘটে বলে জানা গেছে।

নিহতরা হলেন- সামসুন্নাহার ও তার ছেলে শাওন।

রমনা জোনের এডিসি জানান, সন্ধ্যায় খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, রমনা থানাধীন কাকরাইলের ওই বাড়ির পাঁচতলায় পরিবার নিয়ে থাকেন আবদুল করিম। বুধবার তার স্ত্রী ও ছোট ছেলেকে গলা কেটে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করেছে।

শাওন তার মা সামসুন্নাহার ছাড়াও ঘটনার সময় ঘরে ছিলেন গৃহকর্মী রাশিদা।

রাশিদা সাংবাদিকদের জানান, তিনি রান্নাঘরে কাজ করছিলেন। হঠাৎ কেউ রান্নাঘরের দরজা বাইরে থেকে বন্ধ করে দেয়।

তিনি বলেন, আমি চিৎকার করে বলেছিলাম, আম্মা দরজা বন্ধ করলেন কেন, দরজা খোলেন। কিন্তু কারও কোনো সাড়া পাইনি, দরজাও কেউ খোলেনি। এর মধ্যে চিৎকার শুনি। কিছুক্ষণ পর বাড়ির দারোয়ান এসে ছিটকানি খুলে দেয়।

এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য বাড়িটির দারোয়ান ও নিরাপত্তাকর্মীসহ কয়েকজনকে আটক করেছে পুলিশ।

আটক দারোয়ান পুলিশকে জানায়, উপর থেকে একজন লোক নিচে এসে ওপরে মারামারি লাগছে জানিয়ে তাকে যাওয়ার জন্য বলে। তখন দারোয়ান উপরে উঠে পাঁচতলার সিঁড়িতে শাওনের লাশ ও ভেতরে সামসুন্নাহারের লাশ দেখতে পান।

পুলিশ বলছে, কীভাবে ঘটনা ঘটেছে, আমরা তদন্ত করছি।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »