ফরিদপুরে বিয়ে বাড়িতে ডাকাতের গুলিতে নিহত ২

Feature Image

জেলা প্রতিনিধি, স্বাধীনবাংলা২৪.কম

ফরিদপুর:জেলার চরভদ্রাসন উপজেলায় ডাকাতদের গুলিতে দুজন গ্রামবাসী নিহত হয়েছেন। আহত দুজন। বুধবার দিবাগত রাত আড়াইটার দিকে উপজেলার সদর ইউনিয়নের পদ্মা নদী সংলগ্ন মৃধাডাঙি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

গ্রামবাসীরা বলছে, ১৮ থেকে ২০ জনের ডাকাত দল স্পিডবোটে করে ওই গ্রামে যায়। সামচেল ফকির নামের এক ব্যক্তির বাড়িতে বিয়ের উৎসব চলছিল। সেই বাড়িতেই হামলা চালায় ডাকাতেরা। ওই বাড়ির সদস্যরা বলছেন, চার দলে ভাগ হয়ে ডাকাতেরা চারটি ঘরে লুটপাট চালায়। এরপর আরেক বাড়িতে ডাকাতি করতে যায়।

টের পেয়ে গ্রামবাসীরা ডাকাতদের ধাওয়া দেয়। নদীর পাড়ে গিয়ে ডাকাতদের স্পিডবোট ভাসিয়ে দেওয়ার চেষ্টা চালায়। সেখানে থাকা ডাকাতেরা গ্রামবাসীকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। এ সময় বুকে ও পেটে গুলিবিদ্ধ হয়ে গ্রামবাসী সাজ্জাদ মিয়া (৩৭) ঘটনাস্থলে নিহত হন। আহত হন সেন্টু মৃধা (৩৩), স্বপন ব্যাপারী (২৪) ও আল আমিন ফকির (২৫)। সেন্টু আজ বৃহস্পতিবার ভোর ৪টার দিকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। আহত স্বপন ও আল আমিনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

সামচেল ফকিরের ছেলের বউ মুক্তা বেগম বলছেন, ডাকাতেরা ৪৫ ভরি স্বর্ণালংকার ও টাকা লুট করেছে। টাকার পরিমাণ তিনি জানাতে পারেননি।

চরভদ্রাসন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রামপ্রসাদ ভক্ত বলেন, বিয়েবাড়িতে গানবাজনার আসর ছিল। তাঁদের ধারণা, সেখানেই শ্রোতা সেজে এসেছিল ডাকাতেরা। রাতেই নদীতে পুলিশ অভিযান চালিয়েছে। ডাকাতদের কাউকে ধরতে পারেনি।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »