ইসরায়েলের লেজুরবৃত্তি বিতর্কে ব্রিটিশ মন্ত্রীর পদত্যাগ

Feature Image

স্বাধীনবাংলা২৪.কম

অার্ন্তজাতিক ডেস্ক: পারিবারিক ছুটি কাটানোর নাম করে ইসরায়েলে গিয়ে দেশটির কর্মকর্তাদের সঙ্গে গোপন বৈঠকের জের ধরে পদত্যাগ করেছেন যুক্তরাজ্যের আন্তর্জাতিক উন্নয়নবিষয়ক মন্ত্রী প্রীতি প্যাটেল।

ওই বৈঠকের খবর ফাঁস হওয়ার পর থেকে প্রীতির পদত্যাগের জোরালো দাবি ওঠে। এর পর বুধবার উগান্ডা সফর বাতিল করে দেশে ফিরে তিনি পদত্যাগপত্র জমা দেন। খবর আলজাজিরার।

পদত্যাগপত্রে ইসরায়েলের সঙ্গে গোপন বৈঠকের বিষয় যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী তেরেসা মে ও পররাষ্ট্রমন্ত্রী বরিস জনসনকে জানাতে না পারায় দুঃখ প্রকাশ করেন প্রীতি।

আলজাজিরার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এ বছরের আগস্টে এক লবিস্টের সঙ্গে ইসরায়েল সফরে যান প্রীতি প্যাটেল। সেখানে তিনি ১২টি গোপন বৈঠকে মিলিত হন।

এর মধ্য একটি বৈঠকে প্রীতি ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর সঙ্গে মিলিত হন।

এ ছাড়া ১৩ দিনের ওই সফরকালে গোলান উপত্যকায় ইসরায়েলের সেনাদের কাছে যুক্তরাজ্যের সাহায্যের অর্থ দিতে চেয়েছিলেন প্রীতি প্যাটেল।

গোপন বৈঠকের খবর ফাঁস হয়ে যাওয়ার পর তিনি তা স্বীকারও করেন।

আলজাজিরা জানিয়েছে, যুক্তরাজ্যের ক্ষমতাসীন দল কনজারভেটিভ পার্টির এই নেতার গোপন বৈঠকের আরও কিছু খবর পাওয়া গেছে।

এর মধ্যে গত ৭ সেপ্টেম্বর যুক্তরাজ্যের পার্লামেন্টে ইসরায়েলের জননিরাপত্তামন্ত্রী গিলাদ এরদানের সঙ্গে বৈঠক করেন তিনি। এর পর ১৮ সেপ্টেম্বর যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে ইসরায়েলের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা ইয়োভাল রটেমের সঙ্গেও বৈঠক করেন প্রীতি।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »