পদত্যাগ নয়, জাতির উদ্দেশে ভাষণ দিলেন মুগাবে

Feature Image

স্বাধীনবাংলা২৪.কম

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: দেশটির সেনা বাহিনীর পক্ষ থেকে চাপ থাকা সত্বেও কয়েক সপ্তাহ ক্ষমতায় থাকবেন বলে মত প্রকাশ করেছেন জিম্বাবুয়ের ‘গৃহবন্দি’ প্রেসিডেন্ট রবার্ট মুগাবে।

রোববার দিবাগত রাতে দেশটির একটি টেলিভিশনে জাতির উদ্দ্যেশে দেওয়া ভাষণে তিনি এ মত প্রকাশ করেন বলে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমেগুলো জানিয়েছে।

জাতির উদ্দেশে দেওয়া ভাষণে মুগাবে বলেন, আগামী ডিসেম্বরে সব নিয়মনীতি মেনে নিজ দল জানু-পিএফের (জিম্বাবুয়ে আফ্রিকান ন্যাশনাল ইউনিয়ন-প্যাট্রিয়টিক ফ্রন্ট) কংগ্রেসের সভাপতিত্ব করবেন তিনি। এ সময় দেশটির রাষ্ট্রপতি হিসেবে কয়েক সপ্তাহ বহাল থাকার  কথা জানান তিনি।

জানু-পিএফ, সামরিক বাহিনী ও জনসাধারণের পক্ষ থেকে তার বিরুদ্ধে করা সমালোচনার বিষয়ে বিভিন্ন মন্তব্য করলেও পদত্যাগের বিষয়ে কিছুই বলেননি ভাষণে। এসময় জিম্বাবুয়েকে স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরিয়ে আনার উপর গুরুত্বারোপ করেন।

এদিকে আনুষ্ঠানিকভাবে কংগ্রেসের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিয়েছে জানু-পিএফ। ধারণা করা হচ্ছে দেশটির পরবর্তী নেতা হিসেবে ভাইস প্রেসিডেন্ট এমারসন নানগাগওয়ার হাতে ক্ষমতা ন্যস্ত করা হতে পারে।

মুগাবের ভাষণ সম্পর্কে দেশটির বিরোধী দলীয় নেতা মর্গ্যান চ্যাঙ্গিরাই বলেন, প্রেসিডেন্ট মুগাবের বক্তব্যে তিনি বিভ্রান্ত হয়েছেন।

তিনি রয়টার্সকে বলেন, মুগাবে একটি খেলা খেলছেন। সমগ্র জাতিকে নিচু করে ফেলেছেন।

এরআগে জানু-পিএফে থেকে মুগাবেকে বহিস্কার করা হয়। এছাড়া তাকে রাষ্ট্রপতির পদ থেকে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে পদত্যাগ করার জন্যও নিজ দল থেকে বলা হয়। একই বৈঠকে মুগাবের স্ত্রী ফার্স্ট লেডি গ্রেস মুগাবেকে দেশটির ক্ষমতাসীন দল জানু-পিএফ থেকে বহিষ্কার করা হয়। তিনি দলের পলিটব্যুরোর সদস্য ছিলেন; পাশাপাশি জানু-পিএফ ওমেনস লিগের প্রধান ছিলেন।

তবে এটি এখনো স্পষ্ট নয় যে দলীয় পদ থেকে বহিষ্কার হওয়ার পরেও মুগাবে কিভাবে আগামী মাসে আয়োজিত জানু-পিএফের কংগ্রেসে সভাপতিত্ব করবেন।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »