বিশ্বের সবচেয়ে বড় সুপারসনিক যুদ্ধবিমান রুশ ‘ব্ল্যাকজ্যাক’

Feature Image

সমরাস্ত্র নির্মাণের প্রতিযোগিতায় একে অন্যকে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিচ্ছে পরাশক্তিগুলো। একের পর এক ব্যালিস্টিক মিসাইল, আন্তঃমহাদেশীয় মিসাইল, সুপাসনিক যুদ্ধ বিমান, বোমারু বিমান, ড্রোন, ট্যাংক, রকেট লঞ্চার সামনে তারা।

আজ চীন কাল যুক্তরাষ্ট্র তো পরের দিন রাশিয়া নতুন নতুন সমরাস্ত্র তৈরির ঘোষণা দিচ্ছে বা প্রদর্শনী করছে। এরই অংশ হিসেবে এবার বিশ্বের সবচেয়ে বড় সুপারসনিক যুদ্ধবিমান ‘ব্ল্যাকজ্যাক’ সামনে আনল ভ্লাদিমির পুতিনের রাশিয়া।
সম্প্রতি দেশটি তাদের কাজানের এয়ারক্রাফট এন্টারপ্রাইজের হ্যাঙ্গার থেকে নবনির্মিত ‘টু-১৬০এম২ বা ব্ল্যাকজ্যাক’ সুপারসনিক যুদ্ধ বিমানের ছবি প্রকাশ করেছে।

টুপোলেভ বিমান কোম্পানির নকশা করা এ যুদ্ধ বিমানটি পৃথিবীর সবচেয়ে বড় সুপারসনিক যুদ্ধবিমান। ১৩০ টন জ্বালানি তেল দিয়ে এটি একটানা উড়তে পারবে অন্তত ১৫ ঘণ্টা। এটিতে থাকছে নতুন ইঞ্জিন, ইলেকট্রনিক অবকাঠামো, কাচের ককপিট, যোগাযোগ ও উন্নত নিয়ন্ত্রণব্যবস্থা। ২০১৮ সালে এটি প্রথম আকাশে উড়ানো হবে।

ধারণা করা হচ্ছে, টু-১৬০এম২ বিমানে আগের মডেলের মতো কেএইচ-১০১/১০২ ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র থাকবে। রাশিয়ার এই ক্ষেপণাস্ত্র সর্বোচ্চ সাড়ে পাঁচ হাজার কিলোমিটার দূর থেকে আঘাত হানতে পারে।

গত ১৬ নভেম্বর কাজানের এয়ারক্রাফট এন্টারপ্রাইজের হ্যাঙ্গার থেকে নবনির্মিত টু-১৬০এম২ বিমান গণমাধ্যমের সামনে নিয়ে আসা হয়। সোভিয়েত ইউনিয়নের পতনের পর এই প্রথমবারের মতো টু-১৬০ বিমানের নতুন সংস্করণ বানাল আধুনিক রাশিয়া।

আরো খবর »