৭১’ এ গণহত্যার আন্তর্জাতিক বিচার দাবি

Feature Image

স্বাধীনবাংলা২৪.কম

ঢাকা: একাত্তরে পাকিস্তানিবাহিনী ও তাদের এ দেশীয় দোসররা যে গণহত্যা চালিয়েছিল আন্তর্জাতিকভাবে তার বিচার করতে হবে।

শনিবার ঢাকায় বাংলা একাডেমি মিলনায়তনে আয়োজিত আন্তর্জাতিক সেমিনারে বক্তারা এই দাবি জানান।

‘১৯৭১: গণহত্যা-নির্যাতন ও মুক্তিযুদ্ধ’ শীর্ষক এই আন্তর্জাতিক সেমিনারটির আয়োজন করে গণহত্যা-নির্যাতন ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক গবেষণা কেন্দ্র। দুই দিনের সেমিনারে বিশ্বের ছয়টি দেশের ১৩ জন মুক্তিযুদ্ধ ও গণহত্যা বিষয়ক গবেষক এবং সারা দেশ থেকে আসা ২৫৬ জন প্রতিনিধি অংশ নিয়েছেন।

ইতিহাসবিদ অধ্যাপক মুনতাসীর মামুন একাত্তরের গণহত্যার বিচার দাবি করে বলেন, মিয়ানমারের সামরিক জান্তা ও অং সান সুচির সরকার মিলে রোহিঙ্গাদের ওপরে গণহত্যা চালাচ্ছে। এসব গণহত্যার বিচার যদি না হয় তাহলে আগামী ১০ বছরের মধ্য দক্ষিণ এশিয়ার সবগুলো দেশে আগুন জ্বলবে। কেউ শান্তিতে থাকতে পারবে না। তিনি বলেন, যুদ্ধাপরাধীদের বিচার এখনো দেশে প্রাসঙ্গিক। কারণ পাকিস্তান এখনো যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের বিরুদ্ধে বক্তব্য দিয়ে যাচ্ছে।

সেমিনারে প্রথম দিনের অধিবেশনে প্রধান আলোচকের বক্তৃতায় একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির সভাপতি শাহরিয়ার কবির বলেন, একাত্তরের পাকিস্তানিবাহিনীর যুদ্ধাপরাধের অনেক প্রমাণ দেশে-বিদেশে রয়েছে। ফলে তাদের বিচারের বিষয়টি আন্তর্জাতিক আদালতে তোলার সুযোগ রয়েছে। সরকারের উচিত দ্রুত এ ব্যাপারে পদক্ষেপ নেওয়া।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আন্তর্জাতিক সম্পর্কবিষয়ক উপদেষ্টা গওহর রিজভী বলেন, একাত্তরের গণহত্যার বিচার আন্তর্জাতিকভাবে চাইতে হলে আমাদের এ বিষয়ের ওপরে আরও তথ্যপ্রমাণ লাগবে। এ জন্য সঠিক পদ্ধতিতে আমাদের আরও গবেষণা করতে হবে। ওই গণহত্যার সত্য প্রতিষ্ঠা করার জন্য এটি আমাদের দায়িত্ব।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »