রোবটকে মানুষের মর্যাদা দিয়ে সৌদি আরব কি শিরক করছে?

Feature Image

স্বাধীনবাংলা২৪.কম

ইসলাম: বাংলাদেশ ইসলামিক পার্টি সৌদি আরবের কাছে রোবট সোফিয়ার নাগরিকত্ব অবিলম্বে বাতিল করার দাবি জানিয়ে বলেছে, দেশটির সরকার রোবটকে নাগরিকত্ব দিয়ে মুসলিমদের হৃদয়ে আঘাত করেছে। পার্টির চেয়ারম্যান মহীউদ্দিন আহমেদ এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ পদক্ষেপের নিন্দা জানিয়ে বলেছেন, মানুষকে সৃষ্টি করেছেন আল্লাহ তার ইবাদত বন্দেগি করার জন্য। আর রোবটের সৃষ্টিকর্তা হলো ডেভিড হ্যানসন, যিনি একজন মানুষ। মানুষকে আল্লাহ আশরাফুল মাখলুকাত বা সৃষ্টির সেরা জীব হিসেবে সৃষ্টি করে দুনিয়াতে পাঠিয়েছেন। এই রোবট পরিচালিত হয় একজন মানুষ দ্বারা। মানুষ পরিচালিত হয় একমাত্র আল্লাহ দ্বারা। তাই রোবট কখনো মানব মর্যাদা পেতে পারে না। তাকে মানুষের কাতারে বা এক জায়গায় দাঁড় করানো শেরেক সমতুল্য।

বিবৃতিতে তিনি বলেন, রোবট সোফিয়াকে নাগরিকত্ব যদি কোনো খ্রিস্টধর্মাবলম্বী দেশ প্রদান করত, তাহলে বিষয়টি হত ভিন্ন। হলিউড অভিনেত্রী অড্রে হেপবার্নের চেহারার আদলে ৫ ফুট ৪ ইঞ্চি উচ্চতার সোফিয়াকে তৈরি করেছে হংকংয়ের কোম্পানি হ্যানসন রোবোটিকস। গত ২৬ অক্টোবর রিয়াদে অনুষ্ঠিত একটি সম্মেলনে সোফিয়াকে নাগরিকত্ব দেয় সৌদি আরব। পৃথিবীতে কোনো রোবটকে নাগরিকত্ব দেওয়ার ঘটনা এটাই প্রথম। অনেকেই বলছেন, রোবট সোফিয়া যে সুবিধা বা সম্মান পাচ্ছে, তা দেশটির অনেক নাগরিকই পায় না।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »