সমাজ উন্নয়নে পাবনা জেলার শ্রেষ্ঠ জয়িতা ঈশ্বরদীর মাহমুদা বেগম

Feature Image

ঈশ্বরদী (পাবনা)ঃ  আন্তজাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ এবং বেগম রোকেয়া দিবস পালন উপলক্ষে মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর, মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে সমগ্র দেশ ব্যাপি পরিচালিত “জয়িতা অম্বেষণে বাংলাদেশ” শীর্ষক বিশেষ কার্যক্রমের আওতায় সমাজ উন্নয়নে অসামান্য অবদান রেখেছেন যে নারী ক্যাটাগরীতে জেলা পযায়ে ঈশ্বরদী উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মাহমুদা বেগমকে জেলার শ্রেষ্ঠ জয়িতার সম্মননায় ভুষিত করা হয়।

পাবনা জেলা মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর আয়োজিত জয়িতা অন্বেষণে বাংলাদেশ কার্যক্রমের আওতায় জেলার ৫ জন নারীকে আজ শনিবার দুপুরে সংবর্ধনা প্রদান ও বিভিন্ন বিষয়ের উপর জয়িতা পুরষ্কার প্রদান করা হয়। এসময় পাবনা জেলা প্রশাসক রেখা রাণী বালো উপস্থিত থেকে মাহমুদা বেগমের হাতে ক্রেষ্ট ও সার্টিফিকেট তুলে দেন।
প্রতিক্রিয়ায় মাহমুদা বেগম বলেন, ছোট বেলায় বিয়ে হওয়াতে বেশি দুর লেখাপড়া করতে পারি নেই। এরপরেও আমি কোন হাল ছাড়িনি। বিয়ের পর থেকে আজ পর্যন্ত সমাজ উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছি। আমার কাজের মূল্যায়ন হিসেবে জেলার শ্রেষ্ঠ জয়িতার সম্মানে ভুষিত করায় আমি কৃতজ্ঞ। শ্রেষ্ঠ জয়িতা হওয়ার কারণে আমারে কাজে গতি অঅরও একধাপ বেড়ে যাবে।

তিনি আরও বলেন অতিতে নারীরা অবহেলিত ছিল। নারীরা এখন ঘর সংসার বা ছেলে-মেয়ে নিয়ে ব্যস্ত থাকেন না। নারীরা এখন আর পিছিয়ে নেই। পুরুষের পাশাপাশি সকল ক্ষেত্রেই নারীরা সমান ভাবে কাজ করে চলেছেন। চাকুরী কিংবা ব্যবসা ক্ষেত্রে নারীরাও একধাপ এগিয়ে। মেয়েরা রেলগাড়ি থেকে শুরু করে বিমান চালাচ্ছেন। প্রশাসনের বিভিন্ন স্তরে মেয়েরা চাকরী করছেন। দ্রব্যমূল্যের বাজারে নারী-পুরুষ দুজনে মিলে কাজ করলে সংসারে স্বচ্ছলতা ফিরে আসবে।

আরো খবর »