কুমারখালী উপজেলা প্রশাসন আযোজিত মহান বিজয় দিবসের অনুষ্ঠান পালিত

Feature Image

 

কুমারখালী উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত ৪৬তম মহান বিজয় দিবস যথাযোগ্য মর্যাদায় ও উৎসবমুখর পরিবেশে পালিত হয়েছে। ১৫ ডিসেম্বর সকাল ১০টায় কুশলীবাসা স্মৃতিস্তম্ভে পুষ্পসত্বক অর্জণ ও মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়। এইকই সময়ে কুমারখালী স্পোটি ক্লাব মাঠে শিশু-কিশোরদের ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও সাড়ে দশটায় কুমারখালী শিল্পকলা একাডেমিতে শিশু-কিশোরদের চিত্রাংখন প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। বেলা ১১টায় পান্টি ইউনিয়নের ডাঁসা শহীদ মুক্তিযোদ্ধাদের কবরে সালাম প্রদর্শন ও পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়। রাত-১২:০১ মিনিটে কুমারখালী থানা চত্বরে ৩১ বার তোধ্বনির মাধ্যমে দিবসটির শুভ সূচনা হয়। সূর্যদোয়ের সাথে সাথে সকল সরকারী-বেসরকারী ভবনও প্রতিষ্ঠানে যথাযাগ্য মর্যাদায় জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। সকাল ৮টায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরালে পুষ্পস্তবক অপর্ন করা হয়।

সকাল ৮-৩০ মিনিটে শহীদ মুক্তিযোদ্ধাদের কবরে পুষ্পস্তবক অপর্ন ও ফাতেহা পাঠ হয়। সকাল ৯টায় বীলমুক্তিযোদ্ধা, জনপ্রতিনিধি, কর্মখতা-কর্মচারী, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক ও শিক্ষার্থী ও সুধিজনদের সমন্বয়ে শোভাযাত্রা চলে। সকাল ৯টায় কুমারখালী এম এন পাইলট মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। তাপরপ শুরু হয় মুক্তিযোদ্ধা, পুলিশ, আনসার, ভিডিপি, স্কাউট, গার্লস গাইড ও ছাত্র-ছাত্রীদের সমাবেশ, কুচকাওয়াজ এবং শারীরিক কসরত প্রদর্শন।

বেলা ১২টায় ও বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধণা ও সুখী সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গঠনের লক্ষ্যে ডিজিটাল প্রযুক্তির সার্বজনীন ব্যবহার এবং মুক্তিযুদ্ধ শীর্ষক আলোচনা সভা আবুল হোসেন তরুন অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত হয়। দুপুর ১-৩০ মিনিটে হাসপাতালে অবস্থানরত রোগী ও এতিমখানার ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে উন্নতমানের খাবার পরিবেশন করা হয়। বেলা ৩টায় স্পোর্টি ক্লাব মাঠে প্রীতি ফুটবল ম্যাচ এবং সুবিধাজনক সময়ে জাতির শান্তি ও অগ্রগতি কামনা করে বিশেষ মোনাজাত ও প্রার্থনা এরপর সন্ধ্যায় সকল সরকারী-বেসরকারী প্রতিষ্ঠান/ভবনে আলোকসজ্জা এবং সন্ধ্যা ৬-৩০ মিনিটে কুমারখালী পাবলিক লাইব্রেরীতে সাংষ্কৃতিক অনুষ্ঠানের বযভস্থাও করা হয়েছে।

 

সকল অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. শাহীনুজ্জামান। বঙ্গবন্ধু ম্যুরাল ও গণকবরে অতিথি ছিলেন মাননীয় সংসদ সদস্য আব্দুর রউফ, কুমারখালী উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুল মান্নান খান, কুমারখালী পৌরসভার মেয়র সামছুজ্জামান অরুন এবং সাবেক সংসদ সদস্য সুলতানা তরুন। এমএন হাইস্কুল মাঠে আনুষ্ঠানিক পতাকা উত্তোলন, কুচকাওয়াজ, শারীরিক কসরতে অতিথি ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুল মান্নান খান, পৌলসভারর মেয়র সামছুজ্জ্মান অরুন, কুমারখালী থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মখর্তা আব্দুল খালেক।

Loading...

আরো খবর »