রাস্তায় থুতু ফেললেই জরিমানা

Feature Image

অনেকেই যেখানে-সেখানে পানের পিক কিংবা থুতু ফেলে থাকে। মানুষের এই বদ অভ্যাস একেবারে বন্ধ করতে অভিনব উদ্যোগ নিয়েছে ভারতের মধ্য প্রদেশের ইন্দোর পৌরসভা।

ধরা পড়লে আর্থিক জরিমানা তো হবেই, ছবি ছাপা হবে পত্রিকায়। এমনকি রেডিওতে তাদের নামও ঘোষণা করা হবে।
এই মুহূর্তে ভারতের সবচেয়ে পরিচ্ছন্ন শহর ইন্দোর। ‘স্বচ্ছ ভারত অভিযানে’র অংশ হিসেবে গত কয়েক বছর ধরেই কোয়ালিটি কাউন্সিল অব ইন্ডিয়া দেশটির ৪৩৪টি শহরে সমীক্ষা চালায়। পরিচ্ছন্নতার বিচারে শহরগুলোর র্যাংকিং প্রকাশ করা হয়। পশ্চিমবঙ্গের কোনো শহর অবশ্য এ সমীক্ষার ভেতর ছিল না। সবচেয়ে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন শহরের এই স্বীকৃতি ধরে রাখতে নানা উদ্যোগ নিয়েছে ইন্দোর পৌরসভা। শহর পরিচ্ছন্নতায় এগিয়ে থাকলেও একটা অংশের নাগরিকের মধ্যে অপরিচ্ছন্নতার অভ্যাস এখনো রয়ে গেছে। রাস্তাঘাটে থুতু ফেলাটা এখনো একটা বড় সমস্যা।

তাদের আটকাতেই অভিনব পন্থা ভেবেছেন শহরের মেয়র মালিনী গৌড়। পত্রিকায় ছবি, নাম ছাপানোর ভয়ে থুতু বা পানের পিক ফেলা কমবে বলে মনে করেন তিনি। তাঁর কথায়, ‘নানাভাবে বলেও রাস্তায় থুতু ফেলা আটকানো যাচ্ছে না। আশা করি, জনসমক্ষে এভাবে হেয় করা হলেই এ ধরনের কাজকর্ম বন্ধ করা যাবে। ’ পৌরসভার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, আগামী ২৫ ডিসেম্বর থেকে এ অভিযান শুরু হবে। আপাতত ঠিক হয়েছে, দোষীদের ২০০ থেকে ৫০০ টাকা পর্যন্ত জরিমানা করা হবে। পৌরসভাকর্মীদের ছাড়াও এ অভিযানে স্কুলপড়ুয়াদের সহযোগিতা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন পৌর মেয়র। সূত্র : আনন্দবাজার।

আরো খবর »