না.গঞ্জে বিএনপির সঙ্গে পুলিশের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া

Feature Image

স্বাধীনবাংলা২৪.কম

নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জে ‘গণতন্ত্র হত্যা দিবসের’ মিছিল বের করতে চাইলে জেলা বিএনপি নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এর আগে জেলা বিএনপি নেতাদের ধাওয়া করে ছত্রভঙ্গ করে দেয় পুলিশ।

শুক্রবার বেলা ১১টায় চাষাঢ়া প্রেসক্লাবের সামনে জেলা বিএনপির সভাপতি কাজী মনিরুজ্জামান, সাধারণ সম্পাদক মামুন মাহমুদ, মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এটিএম কামালসহ নেতাকর্মীরা প্যারাডাইজ ক্যাবলের সামনে কালোপতাকা নিয়ে অবস্থান নেন। পরে বিপুলসংখ্যক পুলিশ লাঠি হাতে নেতাকর্মীদের ধাওয়া দিলে নেতাকর্মীরা দৌড়ে পালিয়ে যান।

এসময় একদল নেতাকর্মী নিয়ে জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মামুন মাহমুদ ও মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এটিএম কামাল না দৌড়ে মূল সড়কে উঠতে চাইলে পুলিশ বাধা দেয়। পরে পুলিশের সাথে নেতাকর্মীদের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া হয়। বিএনপি নেতাকর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট পাটকেল নিক্ষেপ করলে পুলিশ মিছিলটি ছত্রভঙ্গ করে দেয়।

এর আগে সকাল সাড়ে ১০টায় মহানগর বিএনপির সভাপতির পক্ষে সাংগঠনিক সম্পাদক আবু আল ইউসুফ খান টিপু ও মহানগর ছাত্রদলের আহ্বায়ক আবুল কাউসার আশার নেতৃত্বে মহানগর বিএনপি নেতাকর্মীরা একই স্থানে কর্মসূচি পালন করতে চাইলে পুলিশ বাধা দেয়। পরে পুলিশের সাথে বাকবিতণ্ডার এক পর্যায়ে মূল সড়কে উঠতে না পেরে শহরের গলাচিপা রেললাইন, নন্দিপাড়া হয়ে দেওভোগ পর্যন্ত মিছিল করেন মহানগর বিএনপির নেতাকর্মীরা।

একই সাথে মহানগর বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন খান বেলা ১১টায় শহীদ মিনারে বিক্ষোভ কর্মসূচি ও কালো পতাকা মিছিল করার চেষ্টা করলে পুলিশ বাধা দেয়। সেখানেও তার সাথে পুলিশের বাকবিতণ্ডা হয়। জেলা বিএনপির সহসভাপতি আজাদ বিশ্বাস দলের নেতাকর্মীদের নিয়ে শহীদ মিনারে কালো পতাকা নিয়ে বিক্ষোভ মিছিল করেছেন।

তবে নেতাকর্মীদের সঙ্গে ধাওয়ার বিষয়ে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানা পুলিশের ইন্সপেক্টর (তদন্ত) আব্দুর রাজ্জাক  বলেন, বিএনপির নেতাকর্মীরা জড়ো হয়ে বিশৃঙ্খলার চেষ্টা করলে জনসাধারনের নিরাপত্তার স্বার্থে তাদের সরিয়ে দেয়া হয়েছে।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »