আরব বিশ্বের প্রথম নারী কুস্তিগির সাদিয়া

Feature Image

সাদিয়া বেসিসো। জর্দানের আম্মানের বাসিন্দা। তার প্রথম পরিচয় তিনি একজন টিভি উপস্থাপক। কিন্তু উপস্থাপনার গণ্ডি পেরিয়ে মার্শাল আর্ট। আর এখন রীতিমতো পেশাদার কুস্তিগির (রেসলার) হিসেবে নাম লিখিয়েছেন তিনি। সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের বিনোদন প্রতিষ্ঠান ওয়ার্ল্ড রেসলিং এন্টারটেইনমেন্টে (ডব্লিউডব্লিউই) কুস্তি লড়তে হাজির হন সাদিয়া। যা তাকে প্রথম আরব নারী কুস্তিগিরের খেতাব এনে দিয়েছে।

গত সোমবার ডব্লিউডব্লিউইতে যুক্ত হন পেশাদার মার্শাল আর্টের অ্যাথলেট সাদিয়া। ৩১ বছর বয়সী এ জর্ডানি নারী ২০১৪ সালে মার্শাল আর্ট শুরু করেন। বেশ কয়েকটি প্রতিযোগিতায় অংশ নেন। স্বীকৃতি স্বরূপ ডোরাকাটা নীল বেল্টও পেয়েছেন তিনি।

এ প্রসঙ্গে সাদিয়া জানান, তিনি বিভিন্ন শোতে উইমেন সুপারস্টার হিসেবে চিহ্নিত হয়েছেন। তাঁর প্রত্যাশা, মার্শাল আর্ট ও টিভি উপস্থাপনায় ডব্লিউডব্লিউই তাঁর সুযোগকে ঠিকভাবে কাজে লাগাতে পারবে।

 

তিনি আরও জানান, রিংয়ের ভেতরে কুস্তি লড়তে তাঁর আরও দুই বছর সময় লাগতে পারে। তবে তিনি কতটা ভালো কাজ করছেন, তার ওপর বিষয়টা নির্ভর করছে।

আরো খবর »