শত্রু-শত্রু খেলা নয়, বন্ধুত্বেই স্বার্থরক্ষা নীতি শেখ হাসিনার

Feature Image

কুষ্টিয়া  : তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, ‘প্রতিবেশীর সঙ্গে শত্রু-শত্রু খেলার কূটকৌশল নয়, দেশের স্বার্থ অক্ষুন্ন রেখে বন্ধুত্বই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নীতি।’
‘অতীতের সামরিক-সাম্প্রদায়িক সরকারগুলোর প্রতিবেশীর সঙ্গে শত্রু-শত্রু খেলার নীতি ঝেড়ে ফেলে শেখ হাসিনা বন্ধুত্বের মাধ্যমে সমাধানের নীতি গ্রহণ করে অনন্য সফলতা এনেছেন’, বলেন হাসানুল হক ইনু।

কুষ্টিয়ায় নিজ নির্বাচনী এলাকা সফররত তথ্যমন্ত্রী ও জাসদ সভাপতি ইনু শুক্রবার সকালে জেলা সার্কিট হাউজে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে প্রধানমন্ত্রীর সাম্প্রতিক ভারত সফরের সূত্র ধরে প্রশ্নের জবাবে একথা বলেন।
ভারত প্রসঙ্গে এসময় প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য পুণর্ব্যক্ত করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা অবশ্যই ভারতকে বন্ধুত্ব দিতেই থাকবো। আর বন্ধুত্বপূর্ণ আলোচনার টেবিলেই যে দ্বিপাক্ষিক বিষয়গুলোর সমাধান সম্ভব, শেখ হাসিনা তা প্রমাণ করেছেন।’
‘তিস্তা পানিবন্টন সমাধানে নরেন্দ্র মোদীর ইতিবাচক সাড়া আদায়, দু’দেশের সমুদ্রসীমার সঠিক নির্ধারণ, দীর্ঘপ্রতীক্ষিত ছিটমহল বিনিময় -এসব শেখ হাসিনার বন্ধুত্বনীতিরই যুগান্তকারী অর্জন’ বলেন তিনি।

পরে মিরপুর উপজেলার হালসা ডিগ্রী কলেজ ও তালবাড়িয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে পৃথক দুই সুধী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় হাসানুল হক ইনু বলেন, ‘বিএনপি গণতন্ত্র বা আইন-আদালতের ধার ধারেনা। বিচার বিভাগ খালেদা জিয়ার জামিন মঞ্জুর করলে তারা মিষ্টি খান,আর স্থগিত করলে সরকারকে গালি দেন। আদালত মানা-না মানার এই দ্বৈতনীতি গণতন্ত্রের জন্য ভালো খবর নয়, বরং রাজনীতিকে দুর্নীতিগ্রস্ত করারই চক্রান্ত।’
এদিন বিকেলে উপজেলার নিমতলা বিল-আমলা গ্রামে নতুন বিদ্যুৎ সংযোগ উদ্বোধন ও মিটার বিতরণ করেন মন্ত্রী।

কুষ্টিয়া জেলা জাসদের সভাপতি গোলাম মহসিন, মিরপুর উপজেলা জাসদের সাধারণ সম্পাদক আহাম্মদ আলী, জেলা প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ, জাসদ ও অঙ্গ-সংগঠনের নেতা-কর্মীরা তথ্যমন্ত্রীর সাথে ছিলেন।

আরো খবর »