আর্জেন্টিনার হার মানতে না পেরে নদীতে ঝাঁপ!

Feature Image

নিউজ ডেস্ক: ক্রোয়েশিয়ার বিরুদ্ধে ৩-০ গোলে আর্জেন্টিনার হার মেনে নিতে পারেননি অনেকেই। বিশ্বজুড়ে হতাশ আর্জেন্টিনা সমর্থকদের হতাশা ধরা পড়ছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। এই হতাশা কাটাতে চরম পন্থা বেছে নিলেন ভারতেরে কেরলের বিনু অ্যালেক্স। কেরলকে হতাশ করেছেন মেসি, একটি সুইসাইড নোট লিখে নিখোঁজ হয়ে যান বিনু। স্থানীয়দের দাবি, হারের শোকে নদীতে ঝাঁপ দিয়েছেন কেরালার কোট্টেয়ামের যুবক। এখনও তাঁর খোঁজ চলছে।

ক্রোয়েশিয়ার বিরুদ্ধে আর্জেন্টিনার ৩-০ গোলের লজ্জাজনক হারের পর থেকেই নিখোঁজ বিনু। পরিবারের তরফে জানানো হয়েছে, ৩০ বছর বয়সী বিনু অন্ধ মেসি-ভক্ত। বিশ্বকাপের শুরু থেকেই মেসির হতাশাজনক পারফরম্যান্সে অবসাদে ভুগছিলেন তিনি। ক্রোয়েশিয়া ম্যাচের আগের দিনই নতুন আর্জেন্টিনার জার্সি কিনেছিলেন অ্যালেক্স। সময়মতো খেলা দেখতেও বসে যান তিনি। রাতে ৩-০ তে আর্জেন্টিনা হারার পরই ভেঙে পড়েন অ্যালেক্স। পরিবারের কারও সঙ্গে আর কথা বলেননি। ভোর ৪ টে থেকে তাঁকে আর খুঁজে পাওয়া যায়নি। অ্যালেক্সের মা জানিয়েছেন, ভোরবেলা তাঁর জন্য খাবার তৈরি করতে গিয়ে তিনি দেখেন রান্নাঘরের পিছনের দরজা খোলা। অ্যালেক্সের ঘরের দরজাও খোলা। ঘরে গিয়ে তিনি দেখেন ছেলে নেই।

এরপর স্থানীয় থানায় খবর দেওয়া হয়। স্নিপার ডগ-সহ ঘটনাস্থলে আসে পুলিশ। কুকুরগুলিই মীনাচল নদীতে নিয়ে যায় পুলিশকে। তারপরই সেখানে ব্যাপক তল্লাশি চালিয়েছে পুলিশ। এখনও খবর মেলেনি অ্যালেক্সের। ব্যাপক ঝড়-বৃষ্টির জন্য ব্যাহত হচ্ছে তল্লাশির কাজ। অ্যালেক্সের ঘর থেকে যে সুইসাইড নোট পাওয়া গিয়েছে তাতে লেখা রয়েছে, গোটা কেরলকে হতাশ করেছেন মেসি, এই ফলাফলের পর বেঁচে থাকার আর কোনও কারণ খুঁজে পাচ্ছেন না তিনি। ফুটবল পাগল ছেলে নিখোঁজ হওয়ায় শোকবিহ্বল অ্যালেক্সের গোটা পরিবার।

আরো খবর »