কুৃষ্টিয়ায় ই- মনিটরিং বিষয়ক অবহিতকরণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত

Feature Image

কুষ্টিয়াঃ শুক্রবার কুষ্টিয়া জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসের আয়োজনে শহরের পালকি রেস্টুরেন্টে প্রাথমিক বিদ্যালয় অনলাইনে মনিটরিং এর জন্য ই-মনিটরিং বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সকাল নয়টায় অনুষ্ঠিত কর্মশালায় জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার আনন্দ কিশোর সাহার সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত থেকে দিনব্যাপী কর্মশালার উদ্বোধন করেন প্রাথমিক শিক্ষার খুলনা বিভাগীয় উপ-পরিচালক মেহেরুন নেছা।

বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কুৃষ্টিয়ার সহকারী জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মো. ছানাউল হাবিব, মেহেরপুর জেলার সহকারী জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার এস এম আব্দুর রহমান, খুলনা বিভাগীয় প্রাথমিক শিক্ষা অফিসের শিক্ষা অফিসার মো. আশরাফুল ইসলাম প্রমূখ।

কর্মশালায় তথ্যজ্ঞ ব্যক্তি হিসাবে ই-মনিটরিং , ই- প্রাইমারী স্কুল সিস্টেম ও ই- ব্যবস্থাপনার উপর বিশদ পাওয়ার পয়েন্ট উপস্থাপন করেন নড়াইল জেলার সহকারী জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার এএফএম জাহিদ ইকবাল।

কুষ্টিয়া জেলার ছয়টি উপজেলার উপজেলা শিক্ষা অফিসার, সহকারী উপজেলা শিক্ষা অফিসারগণ, উপজেলা রিসোর্স সেন্টারে কর্মরত ইন্সট্রাকটরগণ,জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসে কর্মকর্ত সহকারী মনিটরিং অফিসার, মনিটরিং অফিসার(উপবৃত্তি) কর্মশালায় অংশগ্রহণ করেন।

প্রসঙ্গগত উল্লেখ্য যে ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মানের লক্ষ্যে প্রাথমিক শিক্ষাকে ডিজিটালাইজড করার অংশ হিসাবে পেপারলেস মনিটরিং করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর। ২০১৬ সালে পাঁচটি উপজেলায় পরীক্ষামূলক ই- মনিটরিং শুরু হয়। পরের বছর আরও ৯৩টি উপজেলায় ই- মনিটরিং কার্যক্রমের আওতায় আসে। ২০১৮ সালের ১ আগস্ট হতে একযোগে সারা দেশে ই- মনিটরিং কার্যক্রম শুরু হবে।

প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগে কর্মরত কোন কর্মকর্তা প্রচলিত পদ্ধতিতে প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সরেজমিনে উপস্থিত না হয়েও কেউ কেউ পরিদর্শন রিপোর্ট প্রস্তুত করতেন। প্রস্তুতকৃত রিপোর্ট উদ্ধর্তন কর্মকর্তাদের নিকট অনেক সময় পাঠানো হতো না কিংবা দেরিতে পাঠানো হতো।

ই- মনিটরিং চালুর ফলে ঘরে বসে কোন কর্মকর্তার পরিদর্শন রিপোর্ট প্রস্তুতের সুযোগ থাকবে না। পরিদর্শনের সময়, অবস্থান এবং পরিদর্শনের সার – সংক্ষেপ উদ্ধর্তন কর্মকর্তাগণ ই- প্রাইমারী স্কুল সিস্টেমে লগ ইন করে দেখতে পারবেন। আবার প্রধান শিক্ষকগণও পরিদর্শনের রিপোর্ট দেখা ও সংগ্রহ করে রাখতে পারবেন। এর ফলে প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতে কার্যকর পরিদর্শন ও তদারকি করা সম্ভব হবে বলে উপস্থিত কর্মকর্তাগণ মনে করেন।

আরো খবর »