আলোচনা ঘনিয়ে আসায় ট্রাম্পের চিঠি, কিমের সন্তুষ্টি প্রকাশ

Feature Image

সিউল : উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের একটি চিঠি গ্রহণের পর ‘মহা সন্তুষ্টি’ প্রকাশ করেছেন। এ দুই নেতার মধ্যে দ্বিতীয় বৈঠকের প্রাক্কালে ট্রাম্প তাকে এ চিঠি দিলেন। বৃহস্পতিবার পিয়ংইয়ংয়ের রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম একথা জানায়। খবর এএফপি’র।


উত্তর কোরিয়ার সরকারি বার্তা সংস্থা কেসিএনএ পরিবেশিত খবরে বলা হয়, এ বৈঠকের জন্য কিম ‘ভাল প্রস্তুতি’ নিচ্ছেন। আন্তর্জাতিক অঙ্গন থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়া পিয়ংইয়ং এই প্রথমবারের মতো আগামী মাসে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া এ বৈঠকের ব্যাপারে মন্তব্য করলো।


চিঠিটি কিমের ডান হাত হিসেবে পরিচিত উত্তর কোরিয়ার ভাইস চেয়ারম্যান কিম ইয়ং চোল দেশটির নেতার কাছে হস্তান্তর করেন। চোল গত সপ্তাহে হোয়াইট হাউসে ট্রাম্পের সঙ্গে সাক্ষাত করেন। দেশ দু’টি নিরস্ত্রীকরণ চুক্তি করার চেষ্টা করছে যাতে দশকের পর দশক ধরে চলা এ দু’দেশের মধ্যকার শত্রুতার নিরসন ঘটানো যায়।
কেসিএনএ জানায়, ‘কিম ট্রাম্পের অনেক প্রশংসা করেন এবং উত্তর কোরিয়া ও যুক্তরাষ্ট্রের দ্বিতীয় সম্মেলনের বৃহৎ স্বার্থে নিরস্ত্রীকরণের বিষয়টি নিরসনের ইচ্ছা ব্যক্ত করেন।’


ওই বার্তা সংস্থা আরো জানায়, উত্তর কোরিয়ার নেতা বলেন, পিয়ংইয়ং প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের ভাবনাকে ইতিবাচকভাবে দেখছে এবং দেশ দু’টি তাদের লক্ষ্য অর্জনের পথে ‘আস্তে আস্তে’ এগিয়ে যাচ্ছে।


এদিকে শনিবার ট্রাম্প বলেন, এ বৈঠকের স্থান নির্ধারণ করা হয়েছে। তবে এ ব্যাপারে তিনি বিস্তারিত আর কিছু জানাননি।


ফেব্রুয়ারিতে বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে বলে হোয়াইট হাউস নিশ্চিত করেছে।
উল্লেখ্য, এ দুই নেতা গত জুনে সিঙ্গাপুরে প্রথম বৈঠক করেন। ওই বৈঠকে তারা একটি অস্পষ্ট চুক্তি স্বাক্ষর করেন। এই চুক্তিতে কিম কোরীয় উপদ্বীপের নিরস্ত্রীকরণের কাজ এগিয়ে নেয়ার প্রতিশ্রুতি দেন।

আরো খবর »