সিঙ্গাইরে ঢালাইয়ের সময় ব্রীজ ধস, এক শ্রমিক আহত

Feature Image

জেলা প্রতিনিধি, স্বাধীনবাংলা২৪.কম

মানিকগঞ্জ থেকে জালাল উদ্দিন ভিকু  : মানিকগঞ্জের সিঙ্গাইরে ঢালাইয়ের কাজ চলার সময় নির্মাণাধীন একটি ব্রীজের একাংশ ধসে পড়েছে। এতে ভুট্টু (৪৫) নামে এক নির্মাণ শ্রমিক আহত হয়েছে। বৃহস্পতিবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে উপজেলার জয়মন্টপ ইউনিয়নের দেউলি কবরস্থান ব্রীজের নির্মাণ কাজ চলার সময় এ ঘটনা ঘটে। আহত শ্রমিক ভুট্টুকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। নি¤œমানের নির্মাণ সামগ্রী, সঠিক ভাবে পাইলিং, ও দুর্বল সেন্টারিং (ঠেকনা) ব্যবহার করায় ব্রীজটি ধসে পড়েছে।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন (পিআইও) অফিস সূত্রে জনা যায়, ত্রাণ ও দূর্যোগ মন্ত্রণালয় ২০১৬-২০১৭ অর্থ বছরে জেলার সিঙ্গাইর উপজেলার জয়মন্টপ ইউনিয়নের দেউলি কবস্থান এলাকায় খালের উপর ৪০ ফুট দৈর্ঘের একটি ব্রীজ নির্মানের জন্য সাড়ে ৩২ লাখ টাকা বরাদ্ধ দেয়া হয়। দরপত্রের মাধ্যমে ৫ পার্সেন্ট কম দরে ৩০ লাখ টাকায় কাজটি পায় এস,এফ এন্টারপ্রাইজ নামে স্থানীয় একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান। চলতি বছরের শুরুতে ব্রীজটির নির্মাণ কাজ শুরু করা হয়। স্থানীয়রা জানান, কাজের শুরুতেই নি¤œমাণের নির্মাণ সামগ্রী ব্যবহার ও কাজের ধীর গতির অভিযোগ উঠে নিয়ে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানটির বিরুদ্ধে। দরপত্র অনুযায়ী সঠিক ভাবে পাইলিং ও নীচে আরসিসি ঢালাই দেওয়া হয়নি।

নির্মাণ কাজে নিয়োজিত আলম নামে এক শ্রমিক জানান, বৃস্পতিবার সকাল সাড়ে ৮টায় ব্রীজের একাংশের ঢালাইয়ের কাজ শুরু করা হয়। সাড়ে ১২টার দিকে কাজ চলাকালীন সময়ে সেন্টারিং (বাসের ঠেকনা) ভেঙ্গে নির্মাধীন ব্রীজের একাংশ ধসে পড়ে। এসময় ভুট্টু নামে তাঁদের এক সহকর্মী ব্রীজ থেকে পড়ে হাত-পায়ে ক্ষতের সৃষ্টি হয়েছে। আহত শ্রমিক ভুট্টুকে স্থানীয় ভাবে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

ঠিকাদার আতাউর রহমান গ্রামবাসীর অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, সিডিউল মোতাবেক কাজ চলছিল। কাজে নি¤œমানের সামগ্রী ব্যবহার ও কোন অনিয়ম করা হয়নি। মিস্ত্রির ভূলে সেন্টারিং (ঠেকনা) দুর্বল হওয়ায় এমনটি হয়েছে। এটি নিতান্তই একটি দুর্ঘটনা। এতে তাঁর প্রায় ৩ লাখ টাকার ক্ষয় ক্ষতি হবে বলে জানান তিনি।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা (পিআইও) শফিকুল ইসলাম নির্মাণাধীন ব্রীজের একাংশ ধসে পড়ার কথা স্বীকার করে বলেন, ব্রীজ নির্মাণে কোনো অনিয়ম ও নি¤œমানের সামগ্রী ব্যবহার হয়নি। কার্যাদেশ অনুযায়ী সব কিছু ঠিকঠাক ভাবে চলছিল। সেন্টারিং (ঠেকনা) ফল্ট করায় ব্রীজের একাংশ ধসে পড়েছে।

 

আরো খবর »