পিরোজপুরে অষ্টম শ্রেনীর ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ

Feature Image

ব্যুরো প্রধান, স্বাধীনবাংলা২৪.কম

পিরোজপুর থেকে এস সমদ্দার: পিরোজপুর সদর উপজেলার কদমতলা ইউনিয়নের উত্তর পোরগোলা গ্রামে শনিবার দুপুরে অষ্টম শ্রেনীর এক ছাত্রী ধর্ষনের শিকার হয়েছে। এ ঘটনায় ধর্ষিতার বাবা থানায় মামলা দায়ের করেছেন। কদমতলা ইউনিয়নের দক্ষিন পোরগোলা গ্রামের বাসিন্দা হুমায়ূন কবির শেখ জানান, তার মেয়ে কদমতলা জর্জ হাই স্কুলে অষ্টম শ্রেনীতে পড়ে। দুপুর একটার দিকে স্কুলে টিফিনের বিরতি দিলে তার মেয়ে বাড়ীতে আসে। খাবার সেরে দেড়টার দিকে  বাড়ীর উত্তর দিকে থাকা পুকুরে হাত পা ধুতে যায়। এ সময় তাদের প্রতিবেশী  সাইদুল সরদার তার মেয়ের গলায় গামছা লাগিয়ে ভয় দেখিয়ে বাগানের মধ্যে নিয়ে ধর্ষণ করে অচেতন করে ফেলে রেখে যায়।

হুমায়ূন কবির শেখ জানান, আমার বোন ফিরোজা বেগম আমাদের বাড়ীতে থাকে। সে পুকুর পারে গেলে আমার মেয়েকে অচেতন অবস্থায় পরে থাকতে দেখে আমাদের ডাক দেয়। এরপর আমরা আমার মেয়েকে উদ্ধার করে পিরোজপুর সদর হাসপাতালে নিয়ে গিয়ে ভর্তি করি। পিরোজপুর সদর হাসপাতালের চিকিৎসক শিশির রঞ্জন অধিকারী জানান, আজ রবিবার  কিশোরীর ডাক্তারী পরীক্ষা করা হবে।

পিরোজপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ মাসুমুর রহমান বিশ্বাস জানান, কদমতলা জর্জ হাই স্কুলের অষ্টম শ্রেণীর ছাত্রী ধর্ষণের ঘঁনায় ধর্ষিতার বাবা বাদী হয়ে তাদের প্রতিবেশী সাইদুল সরদারের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। সাইদুল সরদার কে আটক করার চেষ্টা চলছে।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »