বাঁধ ধসে বন্যার পানি ঢুকছে শহরে, সৈয়দপুরে ৩০ হাজার মানুষ পানিবন্দি

Feature Image

জেলা প্রতিনিধি, স্বাধীনবাংলা২৪.কম

নীলফামারী থেকে আব্দুর রাজ্জাক: জেলার সৈয়দপুর শহর রক্ষা বাঁধ গতকাল রোববার ধসে গিয়ে হু হু করে বন্যার পানি ঢুকছে উপজেলা শহরে। আর এ পানিতে শহরের মিস্ত্রিপাড়া, বাঁশবাড়ি, নতুন বাবুপাড়া, কুন্দল, কাজিরহাট ও পাটোয়ারী পাড়া এলাকা কোমর পানিতে তলিয়ে গেছে। পানিবন্দি হয়ে পড়েছে শহরের প্রায় ৩০ হাজার মানুষ। সংশ্লিষ্ট সূত্র মতে, শহর রক্ষা বাঁধ জেলা প্রশাসন, সেনাবাহিনী, পাউবো, উপজেলা ও পৌরসভা কর্তৃপক্ষ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। কিন্তু বাঁধের ভেঙ্গে যাওয়া অংশে প্রবল স্রোত থাকায় তা রক্ষা করা সম্ভব হয়নি। ফলে ওই পানি শহরে ঢুকে বন্যার সৃষ্টি হয়েছে।

সৈয়দপুর পৌরসভার মেয়র অধ্যক্ষ আমজাদ হোসেন সরকার জানান, বিকেলে শহরের দিনাজপুর সড়কের হাসপাতাল এলাকায় ও পাটোয়ারী পাড়ার রাস্তাঘাট পানিতে তলিয়ে গেছে। সৈয়দপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো: মোখছেদুল মোমিন জানান, পৌরসভা ও ৫টি ইউনিয়নের পানিবন্দি মানুষকে ১৬টি স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসায় সাময়িক আশ্রয়ের জন্য স্থানান্তর করা হয়েছে। প্রয়োজনের ভিত্তিতে সরকারী ও স্থানীয় উদ্যোগে তাদেরকে শুকনো খাবার দেয়া হচ্ছে।

সংসদের বিরোধী দলীয় হুইপ শওকত চৌধুরী এমপি বন্যা দূর্গত এলাকার মধ্যে চওড়া, খাতামধুপুর, হাজারীহাট, বাঙ্গালীপুর, পাটোয়ারী পাড়া পরিদর্শন করেছেন। এ সময় তিনি হাজারীহাট স্কুল এন্ড কলেজের মাঠে বন্যা কবলিত মানুষদের মাঝে চাল, ডাল ও শুকনো খাবার বিতরণ করেন। তিনি জানান, শহর রক্ষা বাঁধটি ধসে যাওয়ার কারনে শহরে পশ্চিম ও দক্ষিন এলাকাগুলোতে বন্যা দেখা দিয়েছে। তিনি বন্যা কবলিত এলাকায় এবং বন্যা পরবর্তী ত্রাণের জন্য সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়কে বিষয়টি অবগত করেছেন বলে জানান।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »