ঝালকাঠিতে অন্তসত্তা গৃহবধূ স^ামীর খোজে ঝালকাঠিতে এসে শ্বশুর বাড়ির নির্মম নির্যাতনে হাসপাতালে

Feature Image

ঝালকাঠি :  স^ামীর খোঁজে নারায়ণগঞ্জ থেকে ঝালকাঠি এসে অন্তস^ত্তা এক নারী শ্বশুর বাড়ির নির্মম নির্যাতনের শিকার হয়েছে। লিজা আক্তার রূপা নামের ওই নারীকে আহত অব¯থায় ঝালকাঠি সদর হাসপাতালে ভর্তি করেছে ঝালকাঠি জেলা পুলিশ। ঝালকাঠি সদর উপজেলার দারাখানা গ্রামে গত শনিবার ১১ আগস্ট এ নির্যাতনের ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও নির্যাতিত নারী জানান, নারায়ণগঞ্জের একটি পোশাক কারখানায় কাজ করতেন রূপা। সেখানে রূপা সাথে পরিচয় হয় হোটেল বাবুর্চি রাজু হোসেনের সাথে। গত দেড় বছর আগে তাদের বিয়ে হলে তারা নারায়ণগঞ্জে বসবাস করে আসছিল। স¤প্রতি রূপা অন্তস^ত্তা হয়ে পড়েন। কিন্তু গত ১৫দিন আগে রূপার স^ামী রাজু রূপাকে রেখে পালিয়ে যায়। গত শনিবার স^ামীর খোজে রূপা শ্বশুর বাড়ি ঝালকাঠিতে আসেন। কিন্তু অন্তস^ত্তা রূপাকে দেখেও তার শ্বাশুরী ও আত্মীয়রা বেধরক পেটায় তাকে। পরে ¯থানীয়রা রূপাকে উদ্ধার করে জেলা পুলিশের কাছে নিয়ে আসে। পুলিশ রূপাকে হাসপাতালে ভর্তি করে।

ঝালকাঠি সদর হাসপাতালের চিকিৎসক মৃণালকান্তি ব্যন্দোপাধ্যায় জানান, রূপাকে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। তবে তার পেটের বাচ্চার ক্ষতি হয়েছে কী না তা নিশ্চিত হওয়ার জন্য কিছু পরীক্ষা করানো হচ্ছে। রিপোর্ট আসার পর পরবর্তী ব্যব¯থা নেয়া হবে।

ঝালকাঠি অতিরিক্ত পুলিশ সদর সার্কেল এমএম মাহমুদ হাসান জানিয়েছে, রূপার স^ামী পালিয়ে আছে। তাকে খুঁজে বের করে স^ামীর সংসারে ফিরিয়ে দেয়ার চেস্টা চলছে। কুামল্লার দাউদকান্দি উপজেলার দড়িগোয়ালি গ্রামের দরিদ্র নজরুল ইসলামের মেয়ে লিজা আক্তার রূপা তার সন্তানকে নিরাপদে ভূমিষ্ঠ করতে চান আর ফিরে পেতে চান তার স^ামীর সংসার।

আরো খবর »