ঈশ্বরদীতে অতি বৃষ্টিতে হাবিবের ১০ বিঘা পেঁপে বাগানের ব্যাপক ক্ষতি

Feature Image

উপজেলা প্রতিনিধি, স্বাধীনবাংলা২৪.কম

ঈশ্বরদী (পাবনা) থেকে সেলিম আহমেদ: ঈশ্বরদী উপজেলার মুলাডুলি ইউনিয়নের আটঘরিয়া গ্রামের বঙ্গবন্ধু জাতিয় কৃষি পদকপ্রাপ্ত কৃষক হাবিবুর রহমান মৎস্য হাবিবের খামারে রোপনকৃত ১০ বিঘা পেঁপে বাগানে এ বছর অতি বৃষ্টির কারণে ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। বৃষ্টির কারণে ফলন্ত পেঁপে গাছ মাটিতে পড়ে নষ্ট হয়েছে এবং হলুদ হয়ে মারা গেছে। ফলন্ত পেঁপে গাছ মারা যাওয়ায় হাবিবের ১৫ লাখ টাকার আর্থিক ক্ষতি হয়েছে বলে তিনি জানিয়েছেন। মাটিতে পড়ে যাওয়া, নষ্ট ও হলুদ হওয়া খামারের প্রতিটি পেঁপে গাছে অসংখ্য পেঁপে ধরে আছে।

বঙ্গবন্ধু জাতিয় কৃষি পদক প্রাপ্ত কৃষক হাবিবুর রহমান মৎস্য হাবিব বলেন, মাছের পাশাপাশি আমার খামারে ১০ বিঘা জমিতে পেঁপে বাগান করেছিলাম। গাছে প্রচুর পরিমাণে পেঁপে ধরেছিল। এতে প্রায় চার থেকে পাঁচ লক্ষ টাকা ব্যয় হয়েছে। আশা করেছিলাম এই পেঁপে বাগান থেকে ১৫ থেকে ২০ লক্ষ টাকার পেঁপে বিক্রি করবো। কিন্তু এবছর অতিমাত্রায় বৃষ্টির কারণে স্বপ্ন পূরণ না হয়ে স্বপ্নই রয়ে গেছে। পেঁপে বাগানের ক্ষতিপূরণে কৃষি মন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।

বাংলাদেশ কৃষক উন্নয়ন সোসাইটির কেন্দ্রিয় সভাপতি ও বঙ্গবন্ধু জাতিয় কৃষি পদক প্রাপ্ত কৃষক সিদ্দিকুর রহমান কূল ময়েজ বলেন, এ বছর অতি বর্ষনের কারণে সারা দেশের মতো ঈশ্বরদীর কৃষকদের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। পেঁপে গাছ পানি সহনশীল নয় তাই অতি বৃষ্টির কারণে মুলাডুলির বঙ্গবন্ধু জাতিয় কৃষি পদক প্রাপ্ত কৃষক হাবিবুর রহমান মৎস্য হাবিবের খামারে রোপনকৃত ১০ বিঘা পেঁপে বাগানের বেশির ভাগ ফলন্ত গাছ মাটিতে পড়ে নষ্ট হয়েছে এবং হলুদ হয়ে মারা গেছে। এতে তার প্রায় ১৫ লাখ টাকার আর্থিক ক্ষতি হয়েছে।

ঈশ্বরদী উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ রওশন জামাল বলেন, পেঁপে গাছ পানি সহ্য করতে পারেনা। জমিতে পানি জমলে পেঁপে গাছ মারা যায়। যাদের পেঁপে গাছ মারা গেছে তাদের স্বল্প মেয়াদি সবজি আবাদের জন্য কৃষি অফিস থেকে পরামর্শ প্রদান করা হচ্ছে। মুলাডুলির বঙ্গবন্ধু জাতিয় কৃষি পদক প্রাপ্ত কৃষক হাবিবুর রহমান মৎস্য হাবিবের খামারে রোপনকৃত পেঁপে গাছ জলাবদ্ধতার কারণে পেঁপেসহ নষ্ট হয়েছে এবং অনেক গাছ মারা গেছে। এতে তার ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। জমি থেকে পানি বের করার জন্য অতিদ্রুত নালা তৈরির পরামর্শ প্রদান করা হয়েছে।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »