রাজশাহীতে ১১টি প্রা: বিদ্যালয় নদী গর্ভে-শিক্ষার্থীদের পাঠদান ব্যহত

Feature Image

জেলা প্রতিনিধি, স্বাধীনবাংলা২৪.কম

রাজশাহী থেকে ওবায়দুল ইসলাম রবি: রাজশাহী বিভাগের ১১টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় নদীগর্ভে বিলীন হয়েগেছে। শিক্ষার্থীদের অধ্যায়ন ব্যহত বিভাগীয় প্রথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর এ তথ্য জানিয়েছে।

রাজশাহী প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের বিভাগীয় উপ-পরিচালক আবুল খায়ের জানান, এবারের বন্যায় রাজশাহী বিভাগের তিন জেলার মধ্যে সিরাজগঞ্জ জেলায় ৮টি, বগুড়ায় দুইটি ও নওগাঁয় একটি সিরাজগঞ্জ জেলার প্রাথমিক বিদ্যালয়। এবং সিরাজগঞ্জ জেলায় নদীগর্ভে চলে গেছে ৮টি বিদ্যালয় এবং ২৬০ প্রাথমিক বিদ্যালয়ক্ষতিগ্রস্ত ও পাঠদান বন্ধ রয়েছে বন্যা কবলিত ১৩৯টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে।এছাড়া আশ্রয়কেন্দ্র হিসেবে ব্যবহার হচ্ছে ৩২টি বিদ্যালয়।

অপরদিকে ক্ষতির মুখে পড়েছে বগুড়া জেলার প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলো। জেলায় নদীগর্ভেচলে গেছে দুটি প্রাথমিক বিদ্যালয়। পানিবন্দি হয়ে পড়ায় পাঠদান বন্ধ রয়েছে৭৬টি বিদ্যালয়ে। এছাড়া আশ্রয়কেন্দ্র হিসেবে ব্যবহার হচ্ছে ১০টি বিদ্যালয়।নওগাঁয় একটি বিদ্যালয় নদীগর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। ১৪৮ বিদ্যালয় বন্যায়ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। পাঠদান বন্ধ রয়েছে ১৬০টিতে। ৫০টি বিদ্যালয় আশ্রয়কন্দ্রে হিসেবে ব্যবহার হচ্ছে।

এছাড়াও রাজশাহী বিভাগে মোট ৮টি জেলায় এ পর্যন্ত বন্যা কবলিত হয়েছে ৬৬৮প্রাথমিক বিদ্যালয়। পানি প্রবেশে করেছে ৫৪৭টিতে। এছাড়া বন্যা দুর্গতেরআশ্রয়কেন্দ্র হিসেবে ব্যবহার হচ্ছে ১১০টি বিদ্যালয়। আবুল খায়ের আরও বলেন, বন্যা কবলিত প্রত্যেক বিদ্যালয়ের ক্ষয়-ক্ষতির পরিমাণ নির্ধারণ করছে সংশ্লিষ্ট জেলা প্রাথমিক শিক্ষা দপ্তর। জেলা শিক্ষা দপ্তরগুলো তাদের কাছে পাঠানো হবে এবং বরাদ্দ প্রাপ্তি সাপেক্ষে বন্যার পানি কমে যাবার সঙ্গে সঙ্গে বিদ্যালয় সংস্কার করে পাঠদানের উপযোগি করে তোলা হবে বলে জানান তিনি।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »