বাংলাদেশে ৪০ শতাংশ পুরুষ ধূমপায়ী

Feature Image

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) এক জরিপের উদ্ধৃতি দিয়ে বুধবার ধূমপান নিয়ে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে এশিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক। যেখানে দাবি করা হয়েছে, বাংলাদেশে শতকরা ৪০ জন পুরুষ ধূমপান করেন।
এছাড়া এশিয়া মহাদেশের মধ্যে পুরুষ ধূমপায়ীর শীর্ষ দেশগুলোর তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান ১১তম বলে উল্লেখ করা হয়েছে প্রতিবেদনে।

তবে এশিয়ায় ধূমপানের শীর্ষে রয়েছে ইন্দোনেশিয়া। দেশটির ৭৬ শতাংশ মানুষ ধূমপান করেন। নেপালে ৩৭ শতাংশ, শ্রীলংকায় ২৮, ভারতে ২০ এবং পাকিস্তানে ৪২ শতাংশ পুরুষ ধূমপানে আসক্ত। এএনএন বলছে, ধূমপায়ীর সংখ্যার হিসাবে এশিয়ায় পাকিস্তানের অবস্থান নবম, নেপালের ১২তম এবং ভারত ১৭তম।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতে, প্রত্যেক বছর প্রায় ৬০ লাখ মানুষ তামাক সেবনের কারণে মৃত্যুবরণ করছে। বিশ্ব অর্থনীতির বিলিয়ন বিলিয়ন ডলার অপচয় হচ্ছে তামাক সেবনের পেছনে।

তবে তালিকার দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে লাওস। দেশটির ৫৭ শতাংশ ধূমপায়ীর বেশিরভাগই ১৩ থেকে ১৫ বছর বয়সের মধ্যেই ধূমপান শুরু করে। দক্ষিণ কোরিয়ার ৫০ শতাংশ মানুষ ধূমপান করেন; সেদেশে ২১ দশমিক চার শতাংশ মানুসের প্রাণহানি ঘটে তামাক সেবনের কারণে।

ভিয়েতনামে ২২ শতাংশ মানুষের মৃত্যু হয় তামাক সেবনের কারণে সৃষ্ট রোগে। ৪৪ শতাংশ তামাক সেবনকারী রয়েছে কম্বোডিয়ায়। দেশটির জনবহুল এলাকা ও কর্মক্ষেত্রে ধূমপানে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে।

প্রসঙ্গত, ১১তম স্থানে থাকা বাংলাদেশেও জনবহুল এলাকায়, যানবাহনে এবং কর্মক্ষেত্রে ধূমপানে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। এসব এলাকায় ধূমপান করলে ৫০ টাকা জরিমানার আইনও রয়েছে।

Loading...

আরো খবর »