ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য নিয়োগে আইনের ব্যত্যয় হয়নি

Feature Image

স্বাধীনবাংলা২৪.কম

ঢাকা: শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন উপাচার্য নিয়োগে আইনের কোনো ব্যত্যয় হয়নি।

মঙ্গলবার সচিবালয়ে তাঁর নিজ দপ্তরে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এ কথা বলেন।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, আইনি ক্ষমতা বলেই রাষ্ট্রপতি ও বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য এই নিয়োগ দিয়েছেন।

উল্লেখ্য, গতকাল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সহ-উপাচার্য অধ্যাপক মো. আখতারুজ্জামানকে সম্পূর্ণ সাময়িকভাবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের দায়িত্ব দেওয়া হয়।

শিক্ষামন্ত্রী আরও বলেন, বিদায়ী উপাচার্য অধ্যাপক আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিকের মেয়াদ ২৪ আগস্ট শেষ হয়। সে জন্যই শূন্যপদে রাষ্ট্রপতি এ নিয়োগ দিয়েছেন। সাময়িক নিয়োগ হলেও চার বছরের জন্য নিয়োগ দেওয়ার সময় যেসব শর্ত লেখা থাকত, নতুন উপাচার্যের ক্ষেত্রেও তা-ই আছে। এটা একটা ফরম্যাটের মতো। আরেফিন সিদ্দিক যখন প্রথম দফায় সাময়িকভাবে উপাচার্য হলেন, তখনো এই শর্তগুলোই লেখা ছিল।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে সাময়িকভাবে নতুন নিয়োগ পাওয়া উপাচার্য মো. আখতারুজ্জামান ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের অধ্যাপক। এর আগে তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সহ-উপাচার্য (প্রশাসন) হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

গত ২৪ আগস্ট উপাচার্য হিসেবে অধ্যাপক আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিকের স্বাভাবিক মেয়াদ শেষ হয়। সিনেটের বিশেষ অধিবেশনে উপাচার্য প্যানেল নির্বাচনের মাধ্যমে ২০১৩ সালের ২৪ আগস্ট তিনি চার বছরের জন্য নিয়োগ পেয়েছিলেন। তবে এর আগে ২০০৯ সালে রাষ্ট্রপতি তাঁকে সম্পূর্ণ অস্থায়ী হিসেবে নিয়োগ দিলেও তিনি নির্বাচন ছাড়াই সাড়ে চার বছর দায়িত্ব পালন করেছেন।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »