জয়নুল আবদীনসহ বিএনপির ২৯ নেতাকর্মীর জামিন

Feature Image

স্বাধীনবাংলা২৪.কম

ঢাকা: বন্যার্তদের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ নিয়ে অভ্যন্তরীণ কোন্দলের জেরে দায়ের করা মামলায় বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা জয়নুল আবদীন ফারুকসহ ১৯ নেতাকর্মীকে আাগাম জামিন দিয়েছেন হাইকোর্ট।

একইসঙ্গে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ছবি ভাঙচুরের অভিযোগে রাঙামাটির কাপ্তাই উপজেলা বিএনপির সভাপতি দিলদার হোসেনসহ ১০ জনকে ছয় মাসের আগাম জামিন দিয়েছেন হাইকোর্ট।

জামিন আবেদনের শুনানি শেষে বুধবার হাইকোর্টের বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ও বিচারপতি আমীর হোসেনের সমন্বয়ে গঠিত অবকাশকালীন বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে আসামিপক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দীন খোকন, সাকিব মাহবুব এবং অ্যাডভোকেট সানজিদ সিদ্দিকী।

সানজিদ সিদ্দিকী জানান, জয়নুল আবদীন ফারুকসহ ১৯ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে গত ৩০ আগস্ট নোয়াখালীর সেনবাগ থানায় জনৈক আব্দুল আল মামুন মামলাটি দায়ের করেন। মামলায় অভিযোগ করা হয়, জয়নুল আবদীন ফারুকের সঙ্গে মামলার বাদী আব্দুল আল মামুনের দীর্ঘদিনের দলীয় বিরোধ চলছিল। গত ২৯ আগস্ট সেনবাগে বন্যাদুর্গতদের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ করতে গেলে সেখানে আসামিরা সংঘবদ্ধ হয়ে আক্রমণ ও বাধার সৃষ্টি করে।

এদিকে, গত ১৮ আগস্ট রাঙামাটির কাপ্তাই ওয়াগ্না ইউনিয়ন পরিষদে বিএনপির সদস্য সংগ্রহের সময় বঙ্গবন্ধু ও শেখ হাসিনার ছবি উল্টে রেখে অবমাননার অভিযোগ এনে গত ২৭ আগস্ট উপজেলা বিএনপির সভাপতি দিলদার হোসেনসহ ১০ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেন ওই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান চিরঞ্জিত তঞ্চঙ্গ্যা।

মামলায় অভিযোগ করা হয়, ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয়ের তালা ভেঙে আসামিরা হলরুমে প্রবেশ করে। তারা দেওয়ালে টাঙানো বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি উল্টিয়ে সভা করে। ছবি নিয়ে সভায় নানা কটূক্তিও করা হয়।

আইনজীবী সানজিদ জানান, বঙ্গবন্ধু প্রতিকৃতি সংরক্ষণ আইন-২০০০ বাতিল হয়ে গেছে। তবে বাতিল আইনেই মামলাটি করা হয়েছে।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »