‘সালমান শাহ আমার প্রকৃত বন্ধু ছিল’

Feature Image

স্বাধীনবাংলা২৪.কম

বিনোদন প্রতিবেদক: ৬ সেপ্টেম্বর ছিল চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় নায়ক সালমান শাহের ২১তম মৃত্যুবার্ষিকী। এইদিনে সহশিল্পী আর কাছের বন্ধুকে নিয়ে স্মৃতিচারণা করেন চিত্রনায়িকা মৌসুমী। সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেসবুকে বন্ধু সালমানের সঙ্গে পুরনো একটি ছবি দিয়ে স্ট্যাটাস দিয়েছেন জনপ্রিয় এই নায়িকা।

ফেসবুকে দেওয়া স্ট্যাটাসে মৌসুমী বলেন, ‘‘আমাদের চলচ্চিত্রের সাথে জড়িত প্রতিটা মানুষের চোখের জলে ভাসছে আজ। কারণ আজ সেই দিন যে দিনে আমরা সবাই হারিয়েছি আমাদের অতি প্রিয় ও গুণী একজন তারকা সালমান শাহকে। সে শুধু একজন অভিনেতাই ছিল না, সে ছিল আমার শৈশব, কৈশোরের বন্ধু। একসাথে পথ চলা ছোটবেলা থেকেই। মাঝপথে বিরতির পর সোহানুর রহমান সোহান স্যারের ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’ ছবির মাধ্যমে আমাদের বন্ধুত্ব আবার নতুন করে শুরু হয়।

যদিও মাত্র চারটি ছবিতে আমি সালমানের সঙ্গে কাজ করেছি কিন্তু আমার প্রকৃত বন্ধু ছিল সে। আজ এতটা বছর পরও তাকে ভুলে যাওয়া সম্ভব হয়নি। হয়তো কখনও পারব না তাকে ভুলে যেতে। সারাদিন কাজ শেষে সময় করে উঠতে পারিনি কিন্তু তাই বলে তোকে ভুলে যাইনি। সারাটা দিন তোকে অনেক মিস করেছি। তুই আছিস আগেরই মত বন্ধু হয়ে মনের গহীনে।

যেখানেই থাকিস ভালো থাকবি মহান আল্লাহ তায়ালার কাছে এই কামনাই করি।’

১৯৯৩ সালে ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’ দিয়ে রূপালি পর্দায় সালমান শাহ-মৌসুমী জুটির আবির্ভাব। প্রথম ছবিতেই বাজিমাত করেন এই দুই তারকা। ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’ ছাড়াও সালমান শাহ-মৌসুমী জুটির অন্য সিনেমা হচ্ছে ‘অন্তরে অন্তরে’, ‘স্নেহ’ এবং ‘দেনমোহর’।

মাত্র চার বছরে ২৭টি ছবি দিয়ে খ্যাতির চূড়ায় পৌঁছে গিয়েছিলেন সালমান। ১৯৯৬ সালের ৬ সেপ্টেম্বর সবাইকে কাঁদিয়ে না ফেরার দেশে চলেন যান তিনি।

অকাল মৃত্যুর ২১ বছর পরেও ক্ষণজন্মা এই অভিনেতার শূন্যস্থান পূরণ হয়নি। আজও তিনি চলচ্চিত্র আকাশে একটি উজ্জ্বল নক্ষত্রের মতো জ্বলজ্বল করে জ্বলছেন।

স্বাধীনবাংলা২৪.কম/এমআর

আরো খবর »