লন্ডনের পাতাল রেলে বিস্ফোরণ ‘সন্ত্রাসী’ ঘটনা

Feature Image

শুক্রবার সকালে ওই স্টেশনে জনাকীর্ণ টিউব রেলের একটি কামরায় হঠাৎ করেই বিস্ফোরণ হয়। সোশাল মিডিয়ায় আসা ছবির বরাত দিয়ে বিবিসি জানায়, ঘটনাস্থলে সাদা রঙের একটি বাস্কেট জ্বলতে দেখা গেছে।

বিস্ফোরণের খবর পাওয়ার পরপরই তদন্তে নামে পুলিশ। কি থেকে আগুনের সূত্রপাত তা এখনও পুলিশ নিশ্চিত হতে না পারলেও সন্ত্রাস-বিরোধী পুলিশের উর্ধ্বতন জাতীয় সমন্বয়ক কমিশনার নীল বসু একে ‘সন্ত্রাসী’ ঘটনা বলেই ঘোষণা করেছেন।

মেট্রো পত্রিকার খবরে বলা হয়েছে, বিস্ফোরণে ট্রেনের যাত্রীদের অনেকের মুখমন্ডল পুড়ে গেছে এবং অন্যান্যরা পরে পদচাপায় আহত হয়েছে।

স্থানীয় সময় শুক্রবার সকাল সোয়া ৮টার পর ফুলহ্যাম এলাকার ‘পারসনস গ্রিন’ স্টেশনে ওই বিস্ফোরণের পর আতঙ্কিত যাত্রীরা ছুটোছুটি শুরু করে। খবর পেয়ে তাৎক্ষণিকভাবে ঘটনাস্থলে লোক পাঠানোর কথা জানায় লন্ডন অ্যাম্বুলেন্স সার্ভিস।

বিবিসি লন্ডনের প্রেজেন্টার রিজ লতিফ কাজে যাওয়ার পথে ওই স্টেশনেই ছিলেন ঘটনার সময়। তিনি জানান, ট্রেন থামা মাত্র বিস্ফোরণের মত একটা শব্দ হয় এবং তারপর যাত্রীরা আতঙ্কে হুড়মুড় করে ট্রেন থেকে নামতে শুরু শুরু করে। দ্রুত সরে যাওয়ার চেষ্টায় ধাক্কাধাক্কিতে অনেকে আঘাত পান।

বিবিসি’র নিউজ প্রেসেন্টার সোফি রাওয়র্থ জানান, তিনি এক নারীকে স্ট্রেচারে করে সরিয়ে নিতে দেখেছেন, যার পা ও মুখে পোড়া ক্ষত ছিল।

ওদিকে আরেক প্রত্যক্ষদর্শীর বরাত দিয়ে রয়টার্স লিখেছে, বিস্ফোরণের মত শব্দের পর ট্রেনের একটি বগিতে আগুন দেখা গেলে হুড়োহুড়ি শুরু হয়। মানুষ যে যেভাবে পারে নেমে যাওয়ার চেষ্টা করে। ফলে ভিড়ের চাপে চ্যাপ্টা হওয়ার মত পরিস্থিতি তৈরি হয়।

লন্ডন অ্যাম্বুলেন্স সার্ভিসের নাতাশা উইলস বলেন, পারসনস গ্রিন স্টেশনে তাদের চিকিৎসাকর্মীরা কাজ শুরু করেছে। আহতরা কে কতটা আঘাত পেয়েছেন তা আগে বোঝার চেষ্টা চলছে। এ বিষয়ে পরে বিস্তারিত তথ্য জানানো সম্ভব হবে।

আরো খবর »