এটিএম আজহারের রিভিউ আবেদনের শুনানি নিয়মিত আদালত খোলার পর

Feature Image

মৃত্যুদণ্ডের সাজা পুনর্বিবেচনা বা বাতিল চেয়ে জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল এটিএম আজহারুল ইসলামের দাখিল করা রিভিউ আবেদনের ওপর আপিল বিভাগে শুনানি নিয়মিত আদালত খোলার পর।

প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বে ভার্চুয়াল আপিল বিভাগ আজ সোমবার এ আদেশ দেন। রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম রিভিউ আবেদনের বিষয়টি আদালতের নজরে আনার পর আদালত ওই আদেশ দেন।

পরে অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম সাংবাদিকদের বলেন, এটিএম আজহারের রিভিউ আবেদন করার বিষয়টি আদালতের নজরে আনা হয়েছিল। আদালত বলেছেন, যখন স্বশরীরে বসবেন তখন দেখবেন।

এটিএম আজহারুল ইসলামের আইনজীবীরা ১৯ জুলাই আপিল বিভাগের সংশ্লিষ্ট শাখায় রিভিউ আবেদন দাখিল করেন। ওইদিন সকালে আপিল বিভাগের রায়ের সত্যায়িত অনুলিপি হাতে পাওয়ার পরই দুপুরে ১৪টি যুক্তিতে রিভিউ আবেদন দাখিল করা হয়।

একাত্তরে স্বাধীনতা যুদ্ধের সময় সংঘটিত গণহত্যা, ধর্ষণ, লুটপাট, অগ্নিসংযোগসহ বিভিন্ন মানবতাবিরোধী অপরাধে ২০১৪ সালের ৩০ ডিসেম্বর এক রায়ে তাকে মৃত্যুদণ্ড দেয় আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল। এ রায়ের বিরুদ্ধে ২০১৫ সালের ২৮ জানুয়ারি আপিল করেন আজহার। এই আপিলের ওপর শুনানি শেষে গতবছর ৩১ অক্টোবর আপিল বিভাগ মৃত্যুদণ্ড বহাল রাখেন। গত ১৫ মার্চ পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশিত হয়। ওইদিনই এর কপি আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে পাঠানো হয়। ১৬ মার্চ ট্রাইব্যুনাল এটিএম আজহারের বিরুদ্ধে মৃত্যুপরোয়ানা জারি করে। কাশিমপুর কারাগারে বন্ই এটিএম আজহারুল ইসলামকে মৃত্যুপরোয়ানা পড়ে শোনানো হয়। এই রায় শোনার পর গত ২১ মার্চ তার আইনজীবীদের রিভিউ আবেদন করার নির্দেশনা দেন। এ মামলায় ট্রাইব্যুনালের আদেশে ২০১২ সালের ২২ আগস্ট আজহারকে গ্রেপ্তারের পর থেকে তিনি কারাবন্দি।

আরো খবর »