পপির করোনার রিপোর্ট এখনও আসেনি: বাবা

Feature Image

ঢাকাই চলচ্চিত্রের অন্যতম জনপ্রিয় নায়িকা সাদিকা পারভিন পপির করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট এখনও আসেনি বলে জানিয়েছেন তার বাবা মিয়া কবীর হোসেন। তিনি বলেন, ‘পপি করোনা পজিটিভ হয়নি, তার রিপোর্ট এখনও আসেনি।’

শুক্রবার রাত ৯টার দিকে সমকালকে এ কথা জানান পপির বাবা।

তবে এ বিষয়ে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত অভিনেত্রী পপির সঙ্গে কথা বলতে একাধিকবার তার ব্যক্তিগত মোবাইল নম্বরে কল করা হলে তিনি রিসিভড করেননি।

এরআগে শুক্রবার কয়েকটি গণমাধ্যমে অভিনেত্রী পপি করোনায় আক্রান্ত বলে প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। ওইসব প্রতিবেদনে বলা হয়, বেশ কিছুদিন ধরে নায়িকা পপির জ্বর, সঙ্গে কাশি। মাঝে জ্বর কমলেও শরীর ভালো লাগছিল না। শ্বাসকষ্টও অনুভূত হচ্ছিল। এ অবস্থায় গত সপ্তাহে নমুনা পরীক্ষা করান তিনি। এরপর থেকে খুলনার খালিশপুরে নিজ বাসায় আইসোলেশনে আছেন তিনি।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর ঢাকা থেকে খুলনায় বাড়িতে চলে যান পপি। প্রায় তিন মাস ধরে সেখানেই অবস্থান করছেন তিনি।

মডেলিং থেকে চলচ্চিত্রে আসেন সাদিকা পারভিন পপি। লাক্স আনন্দ বিচিত্রার সুন্দরী প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন হয়ে পরিচিতি লাভ করেন তিনি। ১৯৯৭ সালে সোহানুর রহমান সোহান পরিচালিত ‘আমার ঘর আমার বেহেশত’ ছবিতে অভিনয়ের মধ্য দিয়ে চলচ্চিত্রে পা রাখেন তিনি। ‘মেঘের কোলে রোদ’, ‘কি যাদু করিলা’, ‘গঙ্গাযাত্রা’ ছবিতে অভিনয় করে শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী হিসেবে তিনবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুস্কারে ভূষিত হয়েছেন পপি।

আরো খবর »