ওয়াই প্লাস নিরাপত্তা ক্যাটাগরি পেলেন কঙ্গনা

Feature Image

বিতর্কিত মন্তব্য করা থেকে যেন বিরতই থাকতে পারেন না বলিউড কুইন কঙ্গনা রানাওয়াত। সম্প্রতি আবারও এমন মন্তব্য করে বিতর্কে জড়ালেন তিনি। কঙ্গনার ভাষায়, মুম্বাই পাক অধিকৃত কাশ্মীরের মতো হয়ে গেছে। তার এই বক্তব্যের পরপরেই কঙ্গনার বিরুদ্ধে সরব হন শিব সেনা নেতা সঞ্জয় রাউত। কঙ্গনাকে জানানো হয়, ক্ষমা না চাইলে তাকে মুম্বাইয়ে ঢুকতে দেওয়া হবে না।

এদিকে কঙ্গনার বিরুদ্ধে মুম্বাইয়ের বিভিন্ন স্থানে প্রতিবাদ বিক্ষোভ করে শাসক দলের কর্মীরাও। এর জেরে এবার কঙ্গনার রাজ্য হিমাচল প্রদেশের সুপারিশে, তাকে নিরাপত্তা দেওয়ার কথা ঘোষণা করল কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, এ অভিনেত্রীকে ওয়াই প্লাস ক্যাটাগরির নিরাপত্তা দেওয়া হবে। এতে তার সঙ্গে তিনটি শিফট মিলিয়ে তিনজন ব্যক্তিগত নিরাপত্তা কর্মকর্তা ও ১০-১১ জনের একটি কমান্ডো দলও থাকছে। তার বাড়িতেও মোতায়েন করা হবে সিআরপিএফ জওয়ানদের।

এই সিদ্ধান্ত গ্রহণের পর কঙ্গনা রানাওয়াত এক টুইট বার্তায় লেখেন, প্রমাণ হয়ে গেল কোনও ফ্যাসিবাদী শক্তি জাতীয়তাবাদী কণ্ঠকে রোধ করতে পারবে না। কঙ্গনা এও বলেন, তিনি অমিত শাহর কাছে কৃতজ্ঞ ভারতের মেয়েদের আত্মসম্মান রক্ষা করার জন্য।

হিমাচল প্রদেশের ডিজিপি সঞ্জয় কুন্ডু জানিয়েছেন, মুখ্যমন্ত্রী জয়রাম ঠাকুরের নির্দেশে কঙ্গনার কতটা ঝুঁকি আছে, সেই বিশ্লেষণ করা হয় ও সেটা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে জানানো হয়। সেই অনুযায়ী অভিনেত্রীকে নিরাপত্তা দেওয়ার কথা ঠিক করা হয়।

কঙ্গনার আদি বাড়ি মান্ডিতে হলেও বর্তমানে তিনি হিমাচলের মানালিতে থাকেন। আগামী ৯ সেপ্টেম্বর মুম্বাইয়ে ফিরবেন তিনি। রোববার হিমাচলের মুখ্যমন্ত্রী বলেন, এই রাজ্যের মেয়ে কঙ্গনা। তাকে নিরাপত্তা দেওয়া কর্তব্য। তিনি জানান, কঙ্গনার বাবা নিরাপত্তার জন্য অনুরোধ করেছিলেন।

শিবসেনাকে চ্যালেঞ্জ কঙ্গনা করে বলেন, তিনি ৯ সেপ্টেম্বর মুম্বাই আসবেন। পারলে যেন তাকে আটকায় শিবসৈনিকরা। এর আগে সুশান্ত সিং ও পালঘর মামলায় মুম্বাই পুলিশের কাজ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন এই অভিনেত্রী। সূত্র: জিনিউজ

আরো খবর »