রমনা পার্ক এখনও বন্ধ কেন? জানতে চান হাইকোর্ট

Feature Image

রাজধানীর রমনা পার্ক কেন এখনও বন্ধ রাখা হয়েছে তা জানতে চেয়েছে হাইকোর্ট। এক সপ্তাহের মধ্যে সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বলে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী আদালতকে এ বিষয়টি জানাবেন। রমনাপার্ক খুলতে আনা রিট পিটিশনের সুপ্রিমকোর্টের আইনজীবী ড. ইউনুছ আলী আকন্দ আজ বৃহস্পতিবার এ কথা জানান। ২৪ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার এ রিটের পরবর্তী শুনানি হবে।

বিচারপতি জে বি এম হাসান ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলম সমন্বয়ে গঠিত একটি হাইকোর্ট ডিভিশন বেঞ্চ বৃহস্পতিবার এ আদেশ দেন। আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী ইউনুছ আলী আকন্দ।

২৪ ঘণ্টার মধ্যে জনসাধারণের জন্য রমনাপার্ক খুলে দেওয়ার নির্দেশনা চেয়ে গত ৮ সেপ্টেম্বর হাইকোর্টে রিটটি দায়ের করা হয়। রিটে রমনা পার্ক বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত কেন অবৈধ ঘোষণা করা হবে না-এ মর্মে রুল জারির আর্জি জানানো হয়। গণপূর্ত সচিবকে রিটে বিবাদী (রেসপনডেন্ট) করা হয়।

ইউনুছ আলী আকন্দ বলেন, সেই মোঘল আমল থেকে রমনা পার্ক জনসাধারণের জন্য উন্মুক্ত। কিন্তু বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসকে কেন্দ্র করে রমনা পার্ক বন্ধ রাখা হয়। বর্তমানে পরিস্থিতি বিবেচনায় ও করোনা সংক্রমণ কমে যাওয়ায় অফিস-আদালতসহ সব কিছু খুলে দেওয়া হয়েছে। কিন্তু রমনা পার্ক এখনও বন্ধ রাখা হয়েছে। এতে জনগণের চলাফেরার অধিকার লঙ্ঘিত হচ্ছে। জনগণের চলাফেরার স্বাধীনতার কথা সংবিধানে ৩৬ অনুচ্ছেদে বলা হয়েছে। রমনা পার্ককে বন্ধ রাখার ফলে জনগণের চলাফেরা করার অধিকার ক্ষুণ্ণ করা হচ্ছে।

তিনি বলেন, পার্কটি খুলে দিতে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ বরাবর লিগ্যাল নোটিশ দিলেও তারা কোনো পদক্ষেপ নেয়নি। তাই জনস্বার্থে রিটটি দায়ের করা হয়েছে।

আরো খবর »