আব্দুস সালাম অন্তরের কবিতা কেশবতী কোকিলা

Feature Image

কেশবতী কোন রূপসী কে তুমি সুন্দরী?
কোথায় তোমার বাস হরণী কোন আসমানে পরি?
চিরল বিরল কালো কেশে উদাস করিয়া মন,
অনুভূতির অন্তরালে ঘর বাঁধিলে কখন?

রোজ বিকেলে বট শীতলে কেশ উড়িয়ে চলা,
অনুভূতির অনেক কথায় কিছু যায়না বলা।
অসিম তোমার কেশের দোলা মন করিল আত্মহারা,
ঘুমহীন চোখ স্বপ্ন হরণ বলতে গিয়েও মুখ বোবা।

ব্যাকুলতা বাঁধ মানেনা অকপটে মন মানে না,
কি জাদু করিলা তুমি চোখের ইশারায়?
কি পীড়িত বাঁধল আমার সর্বাঙ্গ বিভোর?

রোগ নাশকের ডাক্তার তুমি দিতে পারো ঔষধ।
কেশবতী রূপবতী গুনের নাইতো শেষ,
কন্ঠ তাহার কোকিল জোরা প্রশংসা তার বেশ।

সবুজ ঘাসে নূপুর পায়ে চিকন হাতের রাঙা চুড়ি,
কেশের বড়াই থাকবে না চিরকাল হইবা যখন বুড়ি।
মন মহলে স্বপ্ন আঁকি আসবে তুমি রানীর বেশে,
রাজা হয়ে চিরকাল তোমায় রাখবো আমার পাশে।

সংকোচ কাটিয়ে আজ বলবো তোমাকে আমি চাই,
রোজ হাশরে খোদার দরবারে তোমাকেই যেনো পাশে পাই।

আরো খবর »